সাহিত্যে শরৎকালশহরের কোলাহলে আজ কাশফুল আর শিউলিতলা কই! এয়ারপোর্ট-খিলক্ষেত রোডের ধারে কিংবা কামরাঙ্গীরচরের ওপারের পাতলা কাশবন ঢাকাবাসীর মনে কতটা প্রেরণা জোগায়_ কে জানে! অন্যসব শহরের অবস্থাও প্রায় একই রকম। হাইরাইজ বিল্ডিংয়ের ফাঁকে চোখ গলিয়ে নীল আকাশের তুলার মতো সাদা মেঘ কয়জনেরই বা দেখার সৌভাগ্য হয়! মফস্বলে কিছুটা ব্যতিক্রম আছে বটে! গ্রামে গ্রামে এখনো আছে সারি সারি কাশবন আর শিউলিফুলের গন্ধ!ড. ফজলুল হক সৈকত শরৎকালের কথা মনে পড়লে আমরা অনেকে শৈশব-স্মৃতিতে ফিরে যাই। যেন শরতের আকাশের ছেঁড়া ছেঁড়া সাদা মেঘের সঙ্গে শৈশবের স্বপ্নেরা ঘুরে বেড়ায়, উড়ে বেড়ায় লাটাইবাঁধা ছোট কাগজের তৈরি ঘুড়িরা। মায়ের আদর আর শরতের স্নেহমাখা বাতাসের কথা কারও কারও মনে জেগে থাকে আনন্দের বারতা নিয়ে। ভালোবাসাহীন ভালোবাসা সৃষ্টিতে, অন্যের সঙ্গে নিবিড়-গোপন সম্পর্ক স্থাপন করতে আর হারাতে কিংবা ধীরে ধীরে পেতে সহায়তা করে শরৎকালের আবহাওয়া। ক্লান্তিমোচনের, হালকা ভার... বিস্তারিত
শহীদ কাদরীর কবিতায় আধুনিকতাবোধশহীদ কাদরীর কবিতায় যে কাব্যশৈলী বা কাব্যভঙ্গি দেখা যায় তা নাগরিক জীবনের একপ্রস্থ মলাট। যে মলাটের ভিতর শুধু দুঃখ নয়, মিশে থাকে সাদাকালো জীবনের ঠোঁট ফুলানো অভিমান আর সাদা সাদা দাঁতের হাসি।সায়মন স্বপন জীবনের চুয়াত্তরটি বসন্ত পার করে অজানার পথে পাড়ি জমিয়েছেন একুশে পদকপ্রাপ্ত ঋদ্ধ কবি শহীদ কাদরী। অসুস্থতাজনিত কারণে ২৮ আগস্ট, ২০১৬ তারিখে নিউইয়র্কের একটি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। শহীদ কাদরী ১৯৪২ সালের ১৪ আগস্ট কলকাতার পার্ক সার্কাসে জন্মগ্রহণ করেন। কিন্তু সাতচলি্লশে দেশভাগের পর দশ বছর বয়সে পারিবারিক কারণে পরিবারের সঙ্গে ঢাকায় চলে আসেন। ১৯৫৩ সালে তিনি কবিতা লেখার মধ্য দিয়ে লেখালেখির যাত্রা শুরু করেন। ১৯৬৭... বিস্তারিত
পারফর্মিং আর্টমনপুরায় ভাসানে উজানঅবিনাশ পুরকায়স্থ ভোলা জেলার মনপুরা উপজেলার গাঁ ছুঁয়ে ছুঁয়ে বয়ে চলেছে স্রোতস্বিনী মেঘনা। সেই মেঘনার পাড়ে এবারের ঈদের দিন বিকেল ৫টার গোধূলি বেলায় ভিড়েছিল শিল্পী সুজন মাহাবুবের তাৎক্ষণিক শিল্প প্রদর্শনের ধারাবাহিকতায় পারফরমেন্স আর্ট ভাসানে উজান। হাজির হাট লঞ্চ ঘাটের সেতু হয়েছিল শিল্প অনুরাগী দর্শকদের দাঁড়িয়ে দেখবার দর্শক গ্যালারি। শিল্প প্রদর্শনের স্থান মেঘনার পাড়ে ঘাট ছুঁয়ে থাকা নৌকায় দাঁড় করানো ক্যানভাস। মাথায় নাটকে অভিনীত যুবরাজ চরিত্রের রাজ টুপি... বিস্তারিত
গল্পচেনা অচেনার সরলীকরণস্বপ্না রেজা 'তোকে আমি চিনতে পারিনি' উপসংহার নীলের। অদ্ভুত কথা! কী করে পারল বলতে নীল, ভেবে কূলকিনারা পায় না নদী। সম্পর্ক যে মিছে হয়ে যায়, কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে যায় এতটা বছর পর, তা কী জেনেই বলছে নীল ? না বুঝে কী করে ভালোবাসা হয়, মানুষ ভালোবাসতে পারে অন্যকে, মাথায় ঢোকেনি নদীর। বরং কথাটা শোনার পর মাথা ঝিম ধরে গেছে বেশ, ভারও বেড়েছে। কী অকল্পনীয় ধাক্কা বুকের ভেতর, বিশ্বাসের... বিস্তারিত
বৃষ্টি বিলাসীসাজেদ বিশ্বাস রাস্তার সবুজ দুবলো ঘাস মাড়িয়ে চলে যায়-
মন আনচান করে ওঠে
কেন আস্তে পা ফেললাম না!

আমি তো কষ্ট দিতে চাই না-
আমি চাই কেউ আমাকে কষ্ট দিক।

ঝুম বৃষ্টি সকালে মুখ ফসকে-
আমি তোমায় ...
তোমার চোখে-মুখে ফুটে উঠল রক্তখেলা!

তুমি বুঝলেই না ঠোঁট থেকে বের হওয়া অনুভূতি
কতদিনের... বিস্তারিত
বোধের বিশ্বাসআযাদ কামাল সব দিন ফুরিয়ে যায়_ রজনী অাঁধার তখন।

দিন ও রাতের খেলায় মানুষ, পৃথিবী ও সূর্য
সব রঙ মাখে_ হৃদ্য খুশির নির্ঝর প্রাণে_
পরস্পর গড়াগড়ি যায় বাঙ্ময় প্রেম ও বেদনা
প্রকাশের তীব্রতায় ভাষা খুঁজে নতুন সূর্য।

উদ্যানতত্ত্বে আলো মাখামাখি_ বর্ণিল হাসি_
চোখের সীমানা ছেড়ে কতদিন_ শূন্যতায় ভাসি;
জীবনের পরতে পরতে নদীসঙ্গ_ অনুসঙ্গ_... বিস্তারিত
ভালোবাসার শেষকৃত্যবজলুর রশীদ আজও হয়নি ভোলা-
অভিষেকহীন কিছু দুঃখস্মৃতির সুপ্ত
কোলাহল;
অসময়ে নথিভুক্ত হয় নীল
অন্ধকার।

হঠাৎ বহুমাত্রিক রূপ আবেগে
সাজিয়েছে
প্রকৃতি খেয়াল ছাউনিতে;
হয়তো বা আপৎকালীন মখমলে
সংজ্ঞায়
আজও খুঁজে একটু অন্তরঙ্গ শান্তির
চুম্বন।

কেন বৈরী বাতাসের নৃত্য-
বিশ্বাসের শেকড়ে... বিস্তারিত
রোহিঙ্গাঅয়ন সাঈদ আপনার রূপকথার খেয়ালের মধ্যে
উল্টে যায় আমাদের এক একটি পৃষ্ঠা
আপনার শুরুতেই যার ক্লাইমেক্স
এক একটি গল্পবলা তবু শেষ হবে না!

কাঁটাতারে গেঁথে গেঁথে স্বদেশের ধুলো-মাংস
পুনর্বাসন হাওয়ায় ছিঁড়ে যায়, কতগুলো মেঘ
নদীতে ভাসছে- মানুষ ভেলা রোহিঙ্গা রোহিঙ্গা।... বিস্তারিত
নাফ নদীদ্বীপ সরকার নদীটি বরং মৃতই ছিল। বালুবৃক্ষরা একটা নীল চশমা খুঁজছিল।
ছায়াঘেরা ইপিল গাছগুলো তটিনীর প্রতিবেশী বাগান।
ইপিলকে চশমা ভেবে এই ভ্যাপসা গরমে
বালুবৃক্ষদের চোখে জন্মালো দূর্বাঘাস।

জরুরী নোটিশে রোদপোকারা বিব্রত,সটান দুপুরে বৈশাখ
গোলে গোলে পড়ছে যেন। গাঙচিল উঠে দাঁড়ালে
রোদপোকারাও ওঠে।
কামিনী রঙে বেকুব নদী রাঙিয়েছে ঠোঁট।
মশকরা মাছ নাফ নদী চেনেনি, রোহিঙ্গা কি সবাই?... বিস্তারিত
বঙ্গবন্ধু তোমাকেআলমগীর খোরশেদ মধ্যরাতের নীরবতা ভেঙে
রাজপথে সাঁজোয়া বহর,
ধানম-ির বত্রিশ নাম্বারে
শুরু যে কষ্টপ্রহর।
লুটিয়ে পড়ে শেখ কামাল
আর অন্তঃসত্ত্বা বধূ,
ঝাঁঝরা হলো শেখ জামাল
রক্তের ধারা শুধু।
পায়নি রেহাই শেখ রাসেল
সাত বছরের শিশু,
দেয়নি যেতে মায়ের কাছে
মানুষরূপী পশু।
বেরিয়ে এলেন জাতির পিতা
'কী করছিস তোরা'
জবাব এলো হাজার গুলি
... বিস্তারিত
আমরা তৃষ্ণার্ত ছিলামদালান জাহান আমরা তৃষ্ণার্ত ছিলাম,
জ্বলন্ত সূর্যের দাহ সংগীতে,
আমরা তৃষ্ণার্ত ছিলাম,
পাষাণ পূর্ণ পাহাড় থেকে-
নক্ষত্র খচিত আকাশের নিচে,
অনন্ত তৃষ্ণার রঙে-
আমরা চিৎকার করে কেঁদেছিলাম,
আমাদের আত্মার তৃষ্ণা থেকে।

আমরা তৃষ্ণার্ত ছিলাম তাই,
নির্বাসনে গেল অবাঞ্ছিত জল,
আমরা তৃষ্ণার্ত ছিলাম তাই,
বেড়ে উঠল তোমাদের জলজ কোলাহল ।

... বিস্তারিত
মুজিব চেতনায়গুলশান-ই-ইয়াসমীন আয় আয়রে আয়
একাত্তরের মুজিব চেতনায়
আয় আয়রে আয়
সময় বয়ে যায়।
মুজিব মোদের
মুক্তির তরে, খুলেছিল
খুলে ছিল ডোর
মুজিব চেতনায় এসেছিল যে
এসেছিল সোনার ভোর
মুজিব চেতনায়
খুলেছিল ডোর
খুলোছিল ডোর
বাংলাদেশে
এসেছে যে
সোনার ভোর
সোনার ভোর

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব
তোমার মুক্তির চেতন... বিস্তারিত
নাগরিকত্বের দাবি নিয়ে এসেছিপৃথ্বীশ চক্রবর্ত্তী আমরা রোহিঙ্গা
নাগরিকত্বের দাবি নিয়ে
আজ আমরা এসেছি আপনার কাছে মাননীয় অং সান সু চি

বর্তমান সভ্য পৃথিবীতে কোনো জাতি যদি নিজ দেশে
নাগরিকত্ব না পেয়ে থাকে সে জাতি আমরা।
আমরা আমাদের নাগরিকত্ব চাই।

মাননীয় অং সান সু চি
আর কত রক্ত ঝরলে আর কত প্রাণ বিসর্জন দিলে
আর কতটুকুন... বিস্তারিত
 
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin