পরবর্তী সংবাদ
বিএনপির নেতার বাসায় পেট্রল ঢেলে আগুন দেয়ার অভিযোগযাযাদি রিপোর্ট ঢাকার ওয়ারী এলাকায় বিএনপির এক কেন্দ্রীয় নেতার বাসায় আগুন দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পদবঞ্চিত ছাত্রদলের নেতাকর্মীরাই বুধবার পেট্রল দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেন। বিএনপির ওই নেতা হলেন কাজী আবুল বাশার। ঢাকা মহানগর দক্ষিণের বিএনপির সাধারণ সম্পাদক তিনি।
আগুন দেয়ার অভিযোগে ওয়ারী থানা-পুলিশ দু'জনকে গ্রেপ্তার করেছে। তাদের ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে পাঁচ দিন রিমান্ডে নেয়ার আবেদন করেছে। শুনানি নিয়ে আদালত অবশ্য তাদের রিমান্ডে না দিয়ে কারাগারে পাঠিয়েছেন। দু'জন হলেন- যাত্রাবাড়ীর গোলাপবাগের আমজাদ হোসেন (২৬) এবং ওয়ারীর যোগীনগরের আবদুল হাই (৬২)।
ওয়ারীর ৩ নম্বর যোগীনগর রোডের বাসার মালিক বিএনপি নেতা আবুল বাশার। পুলিশ বলছে, এ বাসাটি ওয়ারী থানা বিএনপির অফিস। এ বাসাতেই আগুন দেয়া হয়েছে। ১০ থেকে ১২ জন বাসায় আগুন দেন। আগুন দেয়ার ঘটনায় বাশারের স্ত্রী মেহেরম্নন নেছা ছাত্রদলের সহসভাপতি মুকিদুল হাসান রঞ্জুকে প্রধান আসামি করে ১৪ জনের নাম উলেস্নখ করে মামলা করেন।
মামলায় মেহেরম্নন নেছা বলেন, তার স্বামী বাশার কেন্দ্রের নির্দেশে বিএনপি ও এর অঙ্গসংগঠনের বিভিন্ন কার্যক্রমে অংশ নিয়ে নতুন কমিটি গঠন করেন। গত সোমবার ওয়ারীর ৩৯ নম্বর ওয়ার্ডের ছাত্রদলের নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়। এ কমিটি গঠন প্রক্রিয়ায় তার স্বামী ছিলেন না। পদবঞ্চিত নেতাদের ধারণা, তার স্বামী বাশারের কারণে কমিটিতে তারা কোনো পদ পাননি।
কীভাবে আগুন দেয়া হয় সে ব্যাপারে বিএনপি নেতা বাশারের স্ত্রী বলেন, মঙ্গলবার দিবাগত রাত সোয়া একটার দিকে ১০ থেকে ১২ জন লোক বাসায় প্রবেশ করে। তারা প্রথমে বাড়ির ভাড়াটেদের মারধর করে। একপর্যায়ে বাসার দ্বিতীয় তলায় বিএনপির অফিসের পেট্রল দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে আশপাশের লোকজন এসে আগুন নেভায়। তার অভিযোগ, ছাত্রদলের সহসভাপতি মুকিদুল হাসানের ইন্ধনে আগুন দেয়া হয়েছে।
মামলায় ওয়ারী থানা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহিম, ৩৯ নম্বর ওয়ার্ড ছাত্রদলের সাবেক আহ্বায়ক জামিল আহমেদ, ওয়ারী থানা যুবদলের সদস্যসচিব রম্নবেলসহ সজীব, শুভ্র দাস, লোকনাথ, শরিফ, রানা, জাহাঙ্গীর, নাদিম ইউনুছ, হৃদয়সহ অজ্ঞাত ১০ থেকে ১২ জনকে আসামি করা হয়েছে।
পুলিশ আদালতকে জানিয়েছে, আগুন দেয়ার সময় ঘটনাস্থল থেকে আসামি আমজাদ ও আবদুল হাইকে স্থানীয় লোকজন হাতেনাতে ধরে ফেলে।
ঘটনার মূল হোতাকে ধরতে ও রহস্য উদ্‌ঘাটনের জন্য তাদের রিমান্ড চান মামলার তদন্ত্ম কর্মকর্তা ওয়ারী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) সুদীপ বাছাড়। পুলিশ কর্মকর্তা সুদীপ যায়যায়দিনকে বলেন, ওয়ারী ছাত্রদলের ৩৯ নম্বর কমিটি গঠন হওয়ায় পদবঞ্চিত ছাত্রদল নেতারা বিএনপি নেতা কাজী আবুল বাশারের বাসায় আগুন দিয়েছে। বাসার দুই তলাতে বিএনপির অফিস। সেখানে পেট্রল দিয়ে আগুন দেয়ায় দরজাসহ অফিসের বিভিন্ন জিনিসপত্র পুড়ে গেছে। এ ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে বলে জানান তিনি।
এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসান বলেন, 'আমি এ ব্যাপারে কিছুই জানি না।'
 
পরবর্তী সংবাদ
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
শেষের পাতা -এর আরো সংবাদ
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close