চাঁদপুরে খুঁটিবিহীন শতাধিক বিদু্যৎ সংযোগএক বছরে দুইজনের মৃতু্যচাঁদপুর প্রতিনিধি চাঁদপুর সদর উপজেলার বালিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড উত্তর বালিয়া গ্রামে খুঁটিবিহীন শতাধিক বিদু্যৎ সংযোগ থাকায় পড়ে থাকা তারে বিদু্যৎস্পৃষ্ট হয়ে গত এক বছরে প্রাণগেল দুইজনের। সরেজমিন উত্তর বালিয়া গ্রামে গিয়ে দেখা যায়, উত্তর বালিয়া মিয়াজিবাড়ী থেকে শুরম্ন করে পার্শ্ববর্তী লক্ষ্ণীপুর মডেল ইউনিয়ন পর্যন্ত্ম প্রায় আধাকিলোমিটার এলাকাজুড়ে বিদু্যতের খুঁটি ছাড়া বাঁশ ও সুপারি গাছের সাথে শতাধিক বিদু্যৎ সংযোগ দিয়েছে বিদু্যৎ বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগ চাঁদপুর। মাত্র দুটি তারের মাধ্যমে বাগান, পুকুর ও গাছের সাথে বেঁধে বাড়িতে বাড়িতে সংযোগ দেয়া হয়েছে। কোথাও বসতঘরের উপরে, কোথাও চলাচলের রাস্ত্মায় সংযোগগুলো টেনে নেয়া হয়েছে। এসব তারের মধ্যে রয়েছে অসংখ্য জোড়াতালি। সামান্য ঝড়ো হাওয়া এলেই কাত হয়ে পড়ে বাঁশের খুঁটি। ওই বিদু্যতের সংযোগ প্রায় আধাকিলোমিটার দূরে পার্শ্ববর্তী ফজলুর রহমান হাজী তার সৌদিয়া মার্কেটে নিয়েছেন। এত দীর্ঘ লাইনের বিদু্যৎ সংযোগ যে কোনো সময় আরও প্রাণহানি ঘটতে পারে। স্থানীয়রা জানান, 'আমরা এসব বিদু্যৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে খুঁটির ব্যবস্থা করার জন্য সরকারের কাছে দাবি করছি।' গ্রামের বাসিন্দা ও বিদু্যৎ গ্রাহক আব্দুলস্নাহ খান জানান, গত ৫ বছর পূর্বে বিদু্যৎ সংযোগ ও বিদু্যতের খুঁটি এনে দেয়ার নাম করে স্থানীয় দালাল চক্রের মধ্যে দুলাল শেখ, মমিন গাজী, দুলাল পাটওয়ারীসহ বেশ কয়েকজনের কাছ থেকে কমপক্ষে ৫০ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। তারা এক খুঁটিতে ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকা করে নিয়েছেন। গত ৫ বছরে বিদু্যতের খুঁটি দেয়ার কথা থাকলেও তারা এখন লাপাত্তা। ২নং ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য (সংরক্ষিত) লতিফা বেগম নিলু বলেন, 'যারা দীর্ঘ লাইনে খুঁটি ছাড়া বিদু্যতের সংযোগ নিয়েছেন তারা খুবই প্রভাবশালী। তারা এখন বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করছেন। আমরা এ বিষয়ে প্রশাসনের হস্ত্মক্ষেপ কামনা করছি।' বালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. তাজুল ইসলাম মিয়াজী জানান, 'বিদু্যৎস্পৃষ্ট হয়ে নিহতের ঘটনা আমি শুনেছি। ২নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য জাহিদ বিষয়টি এলাকাবাসীর সাথে আলাপ করে সুরাহা করবেন। খুঁটি ছাড়া দীর্ঘ লাইনে বিদু্যৎ সংযোগের বিষয়ে বিদু্যৎ বিভাগের কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলা প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ বিষয়ে বক্তব্যের জন্য অভিযুক্ত শহীদ শেখ, দুলাল পাটওয়ারী ও মমিন গাজীর বাড়িতে গিয়ে তাদের পাওয়া যায়নি। শহীদ শেখের মোবাইল নম্বরে ফোন দেয়া হলে বন্ধ পাওয়া যায়। এদিকে বিদু্যৎ উন্নয়ন বোর্ড চাঁদপুর বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী এসএম ইকবাল জানান, 'খুঁটি ছাড়া এভাবে এতগুলো বিদু্যৎ সংযোগ দেয়া আছে তা আমার জানা নেই। বিষয়টি সমাধানের জন্য দ্রম্নত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।'

 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
স্বদেশ -এর আরো সংবাদ
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close