শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১

‘ধর্ষণের অভিযোগে’ পুলিশ হেফাজতে কনটেন্ট ক্রিয়েটর ঈসমাইল

যাযাদি ডেস্ক
  ০৯ জুলাই ২০২৪, ১৯:২২
আপডেট  : ০৯ জুলাই ২০২৪, ১৯:৩০
সংগৃহীত ছবি

‘ধর্ষণের অভিযোগে’ হালুয়াঘাট উপজেলার জনপ্রিয় কনটেন্ট ক্রিয়েটর ঈসমাইল হোসেনকে (৩৫) হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ। যাকে কেন্দ্র করে অভিযোগ, সে ঈসমাইলের দ্বিতীয় স্ত্রী বলে জানা গেছে।

হালুয়াঘাট থানায় দেওয়া এক লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে মঙ্গলবার (৯ জুলাই) দুপুরে ঈসমাইলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে যায় পুলিশ।

অভিযোগটি করেছেন এক কিশোরীর মা। তিনি দাবি করেছেন, তার মেয়েকে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ করেন ইসমাইল। ভুক্তভোগী ঈসমাইল হোসেনের বাড়িতে ঝিয়ের কাজ করত।

ভুক্তভোগীও হালুয়াঘাট উপজেলার বাসিন্দা। তার মা লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করেছেন, মেয়ে ঈসমাইলের বাসায় ঝিয়ের কাজ করার সময় তাকে বিয়ে করবেন বলে জানান ঈসমাইল। এ প্রলোভন দেখিয়ে তাকে ধর্ষণ করেন। কিন্তু তিনি বিয়ে না করে উল্টো তাদের হুমকি দিচ্ছেন।

হালুয়াঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাহাবুবুল হক অভিযোগ ও ঈসমাইলকে হেফাজতে নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি এও জানিয়েছেন, ধর্ষণের অভিযোগ হলেও তারা জানতে পেয়েছেন যাকে ভুক্তভোগী বলা হচ্ছে, সে ঈসমাইলের দ্বিতীয় স্ত্রী। ওই কিশোরীকে গোপনে এক বছর আগে বিয়ে করেছিলেন ঈসমাইল।

ওসি মাহাবুবুল হক আরও বলেন, সম্প্রতি ঈসমাইল তার দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক দেন। এ ঘটনায় কিশোরীর মা থানায় ধর্ষণের অভিযোগ করেছেন। ঈসমাইলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। ঘটনাটি খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যাযাদি/এসএস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে