বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১

যৌনমিলন না করা মানসিক অত্যাচার, স্বামীকে বিচ্ছেদের অনুমতি দিলেন উড়িষ্যা হাইকোর্ট

আইন ও বিচার ডেস্ক
  ০৯ জানুয়ারি ২০২৪, ০০:০০

বিয়ে হয়েছে। কিন্তু বিয়ের পর যৌন সম্পর্ক করছেন না স্ত্রী। যদিও স্ত্রীর কোনো শারীরিক অসুস্থতা বা অসুবিধা নেই। কিন্তু তিনি যৌনমিলনে রাজি নন। এই ধরনের পরিস্থিতিকে 'মানসিক অত্যাচার' হিসেবে চিহ্নিত করলেন উড়িষ্যা হাইকোর্ট। একটি ডিভোর্স মামলার পরিপ্রেক্ষিতে এ কথা জানিয়েছেন আদালত এবং এক ব্যক্তির ডিভোর্সের আবেদন মঞ্জুরও করেছেন। উড়িষ্যা হাইকোর্টের বিচারপতি অরিন্দম সিনহা এবং বিচারপতি শিব শঙ্কর মিশ্রের বেঞ্চ এই পর্যবেক্ষণের কথা জানিয়েছেন।

বিয়ের পর দীর্ঘ সময় পেরিয়ে গেলেও যৌনমিলন করতে স্ত্রী আগ্রহ দেখাননি। এমনকি যৌনতার ইচ্ছাপ্রকাশ করলেই তা খারিজ করে দেন। এই অভিযোগ তুলে ডিভোর্সের আবেদন করেছিলেন এক ব্যক্তি। কিন্তু ফ্যামিলি কোর্ট এই মর্মে ওই ব্যক্তির ডিভোর্সের আবেদন খারিজ করে দেন। এই রায়ে খুশি না হওয়ায় ওই ব্যক্তি উড়িষ্যার হাইকোর্টে আবেদন জানান।

সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতেই শুনানি হয়েছে দুই বিচারপতির বেঞ্চে। সে ক্ষেত্রে আদালত দেখেছে, ওই মহিলার বারবার স্বামীর সঙ্গে যৌনতা থেকে বিরত থাকতে চেয়েছেন। এমনকি স্ত্রী বিশেষজ্ঞকে দেখাতেও রাজি হননি। শরীর সংক্রান্ত কোনো পরীক্ষা কেন করাননি তার উত্তর দিতে পারেননি ওই মহিলা ও তার আইনজীবী। এই পরিস্থিতি বিবেচনা করে আদালত জানিয়েছে, এই ক্ষেত্রটি মানসিক অত্যাচারের সমতুল্য এবং এই ব্যক্তির ডিভোর্সের আবেদন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে