শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২০ মাঘ ১৪২৯
walton1

শীতে হাঁটু ব্যথায় করণীয়

যাযাদি ডেস্ক
  ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৩:০৮

শীত আসতে শুরু করলেই বেড়ে যায় অস্থিসন্ধির ব্যথা। বিশেষ করে, এসময় হাঁটুর ব্যথায় কাবু হয়ে পোড়েন অনেকে। 

শীত আমাদের দেহের কোষ ও টিস্যু স্নায়ুর ওপর বেশি চাপ দেয়। ফলে দেখা দেয় অস্থিসন্ধির ব্যথা। যাদের হাঁটুতে আর্থ্রাইটিস বা বাতের সমস্যা রয়েছে তাদের আরও বেশি যন্ত্রণা হয়। এছাড়া বেশি শীতে দেহের জরুরি সব অঙ্গকে গরম রাখতে কাজ করতে হয় হার্টকে। যার ফলে প্রান্তীয় অঙ্গে ব্যথা অনুভূত হতে পারে।

সুস্থ থাকতে শরীরচর্চার বিকল্প নেই। রোজ ৩০ থেকে ৪৫ মিনিট ব্যায়াম করুন। এতে দেহে রক্ত সঞ্চালন বাড়বে। কমবে হাঁটুর ব্যথা। বয়সের ভারে যদি ভারী ব্যায়াম করতে অসুবিধা হয়, তাহলে হালকা জগিং করতে পারে। হাঁটাহাঁটিও এক ধরনের ব্যায়াম। 

হাঁটুর ব্যথা সারাতে বর্তমানে অনেকেই ফিজিয়োথেরাপির সাহায্য নেন। এই পদ্ধতির পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া কম। বিভিন্ন ধরনের তেল মালিশের মাধ্যমে চিকিৎসা করার অনেকে। এছাড়া চিনা চিকিৎসা পদ্ধতি আকুপাংচারও বেশ জনপ্রিয়। তবে চিকিৎসা গ্রহণের পূর্বে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। 

হাঁটুব্যথার জন্য শরীরের বাড়তি ওজন অনেকাংশে দায়ী। শরীরের বাড়তি ওজন হাঁটুর ওপর চাপ ফেলে। তাই হাঁটু ভাল রাখতে এবং ব্যথা নিয়ন্ত্রণ করতে ওজন কমানো জরুরি।

হাঁটুর ব্যথা কমাতে ভরসা রাখুন ঘরোয়া টোটকায়। মধু আর ভিনেগার একসঙ্গে মিশিয়ে ব্যথার স্থানে মালিশ করুন। এতে ব্যথা কমবে। খাদ্যতালিকায় রাখুন খেজুর, কালো জিরা, অলিভ অয়েল ইত্যাদি। প্রতিদিন আধা ঘণ্টা করে গায়ে রোদ লাগান। হাঁটুর ব্যথা কমাতে ভরসা রাখুন আদার রসে। আদা কুচি চিবিয়ে খান। আদা থেঁতো দিয়ে জল ফুটিয়ে আদা চা খেলেও উপকার মিলবে। 

হাঁটুর ব্যথায় ভুগলে খেয়াল রাখবেন খাদ্য তালিকায় যেন ভিটামিন সি ও ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড সমৃদ্ধ খাবার বেশি পরিমাণে থাকে। সামুদ্রিক মাছ, টুনা মাছ, বাদাম, ফ্ল্যাক্সসিড খেতে পারেন। সয়াবিনেও প্রচুর পরিমাণ ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড থাকে। 

এই বিষয়গুলো খেয়ালে রাখলে হাঁটুর ব্যথা থাকবে নিয়ন্ত্রণে। তবে এই ব্যথা যদি মাত্রাতিরিক্ত হয় তবে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। 

যাযাদি/সাইফুল

 
 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে