সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ৪ মাঘ ১৪২৭

​এক রাতে এক কবরস্থান থেকে সাত লাশ চুরি

​এক রাতে এক কবরস্থান থেকে সাত লাশ চুরি

তারানগর ইউনিয়নের কবরস্থানটিতে ইটখোলা ও আশপাশে কয়েকটি গ্রামের মানুষ মারা গেলে কবর দেওয়া হয়। কবরস্থানটি জনবসতির মধ্যে অবস্থিত হওয়া সত্ত্বেও কীভাবে লাশ চুরির ঘটনা ঘটছে তা নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

জানাযায়, ঢাকার কেরানীগঞ্জ উপজেলার তারানগর ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের ইটখোলা কবরস্থান থেকে সাতটি লাশ চুরির ঘটনা ঘটছে। ২ ডিসেম্বর রাতের যে-কোনো সময় লাশগুলো চুরি করা হয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। লাশ চুরির ঘটনায় ওই কবরস্থানে দাফনকৃতের আত্মীয়স্বজনের মধ্যে দুশ্চিন্তা ও লাশ চুরি হয়ে যাওয়ার আতঙ্ক বিরাজ করছে।

লাশগুলো হলো তারানগর ইউনিয়নের ফজলে করিম, সাহাবুদ্দিন, ফজিলতুন নেসা, আমির, হাজী আ. করিম, সিরাজুল ইসলাম ও রওশন আরার।

স্থানীয় মো. মনির হোসেন জানান, গতকাল রাতে একসঙ্গে সাতটি লাশ চুরি হয়েছে। এর আগে এমনটা ঘটেনি কখনো। এলাকাবাসীকে কালকের মধ্যে বসে এ বিষয়ে একটা কার্যক্রম হাতে নিতে হবে। নাইলে ভবিষ্যতে এমনটা আবারও হতে পারে।

মো. সাদেক নামে অন্য একজন বলেন, বছরখানেক আগে দুটি লাশ কবরস্থান থেকে গায়েব হয়ে গিয়েছিল। তখন ভেবেছিলাম হয়তো শিয়াল নিয়ে গেছে। কিন্তু এবারের বিষয়টিতে নিশ্চিত হলাম যে, লাশ কবর থেকে চুরি হয়েছে; কোনো পশু পাখি নিয়ে যায়নি।

কেরানীগঞ্জ মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক অপারেশন আসাদুজ্জামান টিটু জানান এ ব্যাপারে এখনো কোনো অভিযোগ পাইনি। লাশ চুরি হয়ে থাকলে এটি খুবই দুঃখজনক ঘটনা। এক্ষুনি আমি বিষয়টি দেখছি। এলাকাবাসীর সহায়তায় লাশ চুরি রোধে যা যা করণীয় সবই করব।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে