বাজেট উন্নয়ন ও উৎপাদনমুখী: ডিএসই

বাজেট উন্নয়ন ও উৎপাদনমুখী: ডিএসই

নতুন অর্থবছরের (২০২২-২৩) প্রস্তাবিত বাজেটকে উন্নয়ন উৎপাদমুখী হিসেবে দেখছে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) কর্তৃপক্ষ প্রস্তাবিত বাজেটে করপোরেট করহার কমানোর কারণে পুঁজিবাজারে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে বলেও অভিমত ব্যক্ত করে প্রতিষ্ঠানটি

প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে শনিবার (১১ জুন) এক সংবাদ সম্মেলনে আয়োজন করে ডিএসইর পক্ষ থেকে এমন অভিমত দেওয়া হয়েছে সংবাদ সম্মেলনে ডিএসইর চেয়ারম্যান মো. ইউনুসুর রহমান, ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) তারেক আমিন ভূঁইয়া, প্রধান পরিচালন কর্মকর্তা সাইফুর রহমান মজুমদার, শেয়ারহোল্ডার পরিচালক সিদ্দিকুর রহমান এবং শরীফ আনোয়ার হোসেন উপস্থিত ছিলেন

ডিএসইর চেয়ারম্যান বলেন, প্রস্তাবিত বাজেটে পুঁজিবাজারের উন্নয়ন বিনিয়োগ আকৃষ্ট করার লক্ষ্যে পরিশোধিত মূলধনের ১০ শতাংশের অধিক শেয়ার প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) মাধ্যমে হস্তান্তরিত হলে সেই তালিকাভুক্ত কোম্পানির জন্য করহার ২২ দশমিক শতাংশ থেকে কমিয়ে ২০ শতাংশ করার প্রস্তাব করা হয়েছে এতে বাংলাদেশের বৃহৎ এবং স্বনামধন্য কোম্পানিগুলো পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হতে আগ্রহী হবে এটি একটি যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত

করপোরেট কর হার কমানোকে যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত বললেও তালিকাভুক্ত এবং অতালিকাভুক্ত কোম্পানির মধ্যে যে কর ব্যবধান রয়েছে তা নিয়ে আপত্তি তুলেছে প্রতিষ্ঠানটি ডিএসইর দাবি তালিকাভুক্ত এবং -তালিকাভুক্ত কোম্পানির মধ্যে কর হারের ব্যবধান কমপক্ষে ১০ শতাংশ করতে হবে বর্তমানে কর হারের ব্যবধান সাড়ে শতাংশ

আর এক প্রশ্নের উত্তরে ডিএসইর চেয়ারমানের দায়িত্বে থাকা অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সাবেক সিনিয়র সচিব ইউনুসুর রহমান বলেন, বাজেটে মূল্যস্ফীতি জিডিপির (মোট দেশজ উৎপাদন) যে লক্ষ্যমাত্র ধরা হয়েছে তা অর্জন হবে বলে আমি বিশ্বাস করি সেইসঙ্গে যেসব পদক্ষ নেওয়ার কথা বলা হয়েছে সামগ্রিক অর্থনীতিতে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে আর অর্থনীতি ভালো হলে তার ইতিবাচক প্রভাব শেয়ারবাজারেও পড়বে

সার্বিকভাবে ডিএসই প্রস্তাবিত বাজেটকে কীভাবে দেখছে এমন এক প্রশ্নের উত্তরে ডিএসইর প্রধান পরিচালন কর্মকর্তা সাইফুর রহমান মজুমদার বলেন, করপোরেট কর হার কমানোর কারণে তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর মুনাফা বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে এতে বিনিয়োগকারীরা ভালো লভ্যাংশ পাবেন পাশাপাশি কোম্পানির ইপি রেশেও কমে আসতে পারে এটা অবশ্যই শেয়ারবাজারের জন্য ভালো ফল বয়ে নিয়ে আসবে

ডিএসইর ব্যবস্থাপনা পরিচালক বলেন, বিভিন্ন কারণে শেয়ারবাজারে দরপতন হতে পারে প্রস্তাবিত বাজাটের পর শেয়ারবাজারে যে দরপতন হচ্ছে, তা বাজাটের জন্য এটা এখনই বালা যাবে না যদি দুই-তিন মাস বাজার পতনের মধ্যে থাকে তখন আমরা বলতে পারবে এটা বাজেটের জন্য হচ্ছে

যেসব দাবি জানিয়ে ডিএসই

>> জিরো কুপন বন্ডের মতো সবধরনের করপোরেট বন্ডের সুদ বিনিযোগকারী নির্বিশেষে করমুক্ত রাখা

>> তালিকাভুক্ত এবং -তালিকাভুক্ত কোম্পানির করহারের ব্যবধান নূন্যতম ১০ শতাংশ করা

>> করমুক্ত লভ্যাংশের সীমা ৫০ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে কমপক্ষে এক লাখ টাকা করা পাশাপাশি লভ্যাংশ থেকে উৎসে কর চূড়ান্ত করদায় হিসেবে বিবেচনা করা

>> এসএমই বোর্ডে তালিকাভুক্ত কোম্পানির জন্য নূন্যতম বছরের জন্য হ্রাস করা ১০ শতাংশ হারে কর ধার্য করা

>> করপোরেট শেয়ারহোল্ডারদের লভ্যাংশ আয়ের ওপর কর ২০ শতাংশ থেকে কমিয়ে ১০ শতাংশ করা একই সঙ্গে করপোরেট করদাতাদের ক্ষেত্রে লভ্যাংশ আয়ের ওপর চূড়ান্ত করহার ১০ শতাংশ করা

>> সিকিউরিটিজ লেনদেনের ওপর দেওয়া অগ্রিম আয়কর শূন্য দশমিক শূন্য পাঁচ শতাংশ থেকে কমিয়ে শূন্য দশমিক শূন্য ১৫ শতাংশ করা

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে