আলো স্বল্পতায় গুটিয়ে গেল মিরপুর টেস্ট

আলো স্বল্পতায় গুটিয়ে গেল মিরপুর টেস্ট

মিরপুর হোম অব ক্রিকেটে দুই ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট ম্যাচের প্রথম দিনে প্রাকৃতিক কারণে খুব বেশি খেলা হয়নি। বৃষ্টি ও আলোক স্বল্পতায় খেলা হয়নি পুরো এক সেশন। ঢাকা টেস্টের প্রথম দিন শেষে পাকিস্তানের সংগ্রহ ২ উইকেটে ১৬১ রান। বন্ধ হওয়ার আগে খেলা হয়েছে মোট ৫৭ ওভার। সাদা পোশাকে লড়াইয়ের এমনদিনে মেঘলা আবহাওয়া কেড়ে নিয়েছে ৩৩ ওভারের খেলা।

প্রথম সেশনে দুই উইকেটে ৭৮ রান তুলে লাঞ্চ বিরতিতে গিয়েছিল পাকিস্তান। দ্বিতীয় সেশনটি তারা পার করেছে নির্বিঘ্নে। বাংলাদেশ সফরে প্রথম ফিফটির দেখা পেয়েছেন সফরকারী দলের অধিনায়ক বাবর আজম। সেই ফিফটি দ্বিতীয় দিনে আর বাড়ানোর সুযোগ পাননি সফরকারী অধিনায়ক। আলোক স্বল্পতায় শেষ সেশনের

খেলা আর মাঠেই গড়ায়নি। বিকাল সোয়া ৪টার দিকে দিনের খেলা শেষের ঘোষণা দেন আম্পায়াররা। দ্বিতীয় দিনে সকাল ৯টা ২০ মিনিটে মাঠে গড়াবে বল।

বাংলাদেশ দলে অভিষেক হয় অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জয়ী দলের ব্যাটার মাহমুদুল হাসান জয়ের। দলে ফেরেন সাকিব আল হাসান এবং দুই বছর পর প্রত্যাবর্তন হয় পেসার খালিদ আহমেদের।

শনিবার মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে এদিন টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম। সফরে এটিই তার প্রথম টস জয়। দুই ওপেনার আবিদ আলি ও আবদুলস্নাহ শফিকের ব্যাটে শুরুটা দারুণ হয় তাদের। দুজনে থিতু হয়ে যান চট্টগ্রাম টেস্টের মতোই। উদ্বোধনী জুটিতে দুজনে যোগ করে ৫৯ রান। তবে সফরকারীদের ওপেনিং জুটিতে আঘাত হানেন চট্টগ্রাম টেস্টে ৮ উইকেট পাওয়া তাইজুল ইসলাম। ১৮.৩ ওভারের সময় দলীয় ৫৯ রানের মাথায় শফিককে ২৫ (৫০) রানে বোল্ড করে ফেরান সাজঘরে। তার সঙ্গী আবিদও এরপর বেশিক্ষণ টিকে থাকতে পারেননি। ২৫তম ওভারের শেষ বলে আবারও সেই তাইজুল এনে দেন স্বস্তি। প্রথম টেস্টে ১৩৩ আর ৯১ রানের ইনিংস খেলা আবিদ আলীকে ৩৯ (৮১) রানে বোল্ড করে ফেরান। দলীয় ৭৪ রানের মাঝে পাকিস্তানের দুই ওপেনারকেই বোল্ড করেন তাইজুল ইসলাম।

দারুণ শুরু করলেও সেটা ধরে রাখতে পারেনি বাংলাদেশ। দ্বিতীয় সেশনে আর কোনো উইকেটের পতন ঘটতে দেননি বাবর আজম ও আজহার আলী। মধ্যাহ্ন বিরতিতে যাওয়ার আগে পাকিস্তান সংগ্রহ করে ৩১ ওভারে ২ উইকেটে ৭৮ রান। বিরতি থেকে ফেরার পর ১৩ ওভার খেলা শেষেই আসে বৃষ্টি। খেলা বন্ধ থাকে প্রায় আধঘণ্টা। বৃষ্টি শেষে ৪৪ ওভারে ১২৩ রানে খেলা শুরুর পর আর খেলা হয়নি বেশিক্ষণ।

১৩ ওভার খেলতেই দুই আম্পায়ার সিদ্ধান্ত নেন খেলা বন্ধ করতে। ৫৭ ওভারের মাথায় আলোক স্বল্পতায় খেলা বন্ধ হলে পুনরায় আর বল মাঠে গড়ানো সম্ভব হয়নি। তবে এসবের মাঝেও অর্ধশতক তুলে নেন বাবর আজম। দিন শেষে বাবর ৬০ (৯৯) ও আজহার আলী অপরাজিত থেকেছেন ৩৬ (১১২) রানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

পাকিস্তান ১ম ইনিংস : ৫৭ ওভারে ১৬১/২ (আবিদ ৩৯, শফিক ২৫, আজহার ৩৬*, বাবর ৬০*; ইবাদত ০/২৮, খালেদ ০/১৯, সাকিব ০/৩৩, তাইজুল ২/৪৯, মিরাজ ০/৩১)। প্রথম দিন শেষে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

ক্যাম্পাস
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
হাট্টি মা টিম টিম
কৃষি ও সম্ভাবনা
রঙ বেরঙ

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে