রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ৩ মাঘ ১৪২৭

বোয়াল মাছ ধরতে গিয়ে ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যু!

বোয়াল মাছ ধরতে গিয়ে ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যু!

পুকুরে বোয়ালমাছ ধরতে গিয়ে বিষাক্ত প্রাণীর কামড়ে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার বরমী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শামসুল হক বাদল সরকার (৪৭) মৃত্যু বরণ করেছেন। বুধবার (১৩ জানুয়ারি) রাত সাড়ে আটটার দিকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু বরণ করেন তিনি।

মো.শামসুল হক বাদল সরকার বরমী ইউনিয়নের পাঠান টেক গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে। তিনি বরমী ইউনিয়ন পরিষদে একাধিক বার মেম্বার ও গত ১২ বছর ধরে চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন।

স্থানীয় শামীম শেখ জানান, গত সোমবার বরমী উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন লিজ নেয়া একটি পুকুরে পানি শুকিয়ে মাছ ধরতে নামেন শামসুল হক বাদল সরকার। একপর্যায়ে একটি বোয়ালমাছ ধরে পাতিলে রেখে আরও মাছ ধরতে কাদার মধ্যে হাটাহাটি করতে ছিলেন তিনি। হঠাৎই উনার পায়ের বৃদ্ধা আঙ্গুলে বিষাক্ত প্রাণীর কামড় লাগে। এতে সারাদিন ভালো থাকলেও সন্ধ্যার দিকে ব্যাথা অনুভব হয় তার। রাতে ওই ব্যাথা হাতের দিকে অনুভূত হলে স্থানীয় ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা করেন। গভীর রাতে প্রচন্ড জ্বর ও বমি শুরু হলে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরে মঙ্গলবার বিকেলে হাসপাতাল থেকে বাড়িতে ফেরার কয়েকঘন্টা পরপরই তার শারীরিক অবস্থা খারাপ হতে থাকে। পরে জরুরি ভিত্তিতে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বুধবার রাতে সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু বরণ করেন তিনি।

মৃত্যুকালে তিনি তিন ছেলে, স্ত্রী, মাতাপিতা ও অসংখ্য আত্মীয় স্বজন রেখে গেছেন। তার মৃত্যুতে শোকাভিভূত হয়ে একাধিক আইডি থেকে শোকবার্তা জানাচ্ছেন তার গুণগ্রাহী। পারিবারিক সুত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার বিকেল তিনটার সময় বরমী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে মরহুমের জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে।

উল্লেখ্য, মো. শামসুল হক বাদল সরকার ১৯৯১ সালে বরমী ইউনিয়ন পরিষদের ৭নং ওয়ার্ড সদস্য নির্বাচিত হন। একই সাথে সমগ্র বাংলাদেশের একজন সর্বকনিষ্ঠ মেম্বার হিসেবে নির্বাচিত হয়েছিলেন তিনি। মেম্বার থাকা অবস্থায় ২০০৩ সালে বরমী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছিলেন হাবিবুর রহমান। ২০০৭ সালে হাবিবুর রহমান মৃত্যু বরণ করলে ২০১১ সাল পর্যন্ত বরমী ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন শামসুল হক বাদল সরকার। সবশেষ ২০১৭ সালের নির্বাচনে আব্দুর রাজ্জাক বেপারীকে পরাজিত করে বর্তমান পর্যন্ত ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। ২০২১ সালের ১৪ আগষ্ট পর্যন্ত দায়িত্বের মেয়াদ ছিল।

এছাড়াও শামসুল হক বাদল সরকার বরমী ডিগ্রি কলেজের আজীবন দাতা সদস্য ও বরমী উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম বারের নির্বাচিত সভাপতির দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। এর আগে, তিনি বরমী জামিয়ানা মাদ্রাসার সাবেক সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

যাযাদি/এসএইচ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে