গণধর্ষণের ৩ দিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় গৃহবধূর মৃতু্য, গ্রেপ্তার ৪

গণধর্ষণের ৩ দিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় গৃহবধূর মৃতু্য, গ্রেপ্তার ৪

কিশোরগঞ্জের নিকলী উপজেলার জারইতলা ইউনিয়নের হাফসরদিয়া গ্রামের লাল চাঁন মিয়ার স্ত্রী আশামনি (১৯) গণধর্ষণের তিন দিন পর মারা গেছেন। গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত ২টার দিকে কিশোরগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃতু্য হয়। এ ঘটনায় পুলিশ গণধর্ষণের প্ররোচনাকারী নিহত গৃহবধূ আশা মনির স্বামী লাল চাঁন মিয়া (৩১), রন্টু চৌকিদার (৪০), নাসিরুদ্দীন (৩৮) ও শরীফ মিয়া (৩২)-কে আটক করেছে। আশামনির লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নিকলী থানা পুলিশ বুধবার দুপুরে কিশোরগঞ্জ মর্গে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় নিকলী থানায় একটি অপমৃতু্যর মামলা রুজু হয়েছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৭ জুন থেকে ২৮ জুন মঙ্গলবার রাত ৮টার মধ্যে শাহপুর রাস্তার মোড় সংলগ্ন পতিত জমিতে তার স্বামী লাল চাঁন মিয়ার প্ররোচনায় জনি, সুকন মিয়া, রন্টু মিয়া, নাসির মিয়া, লাল চাঁন মিয়া, একদিল মিয়াসহ অজ্ঞাত ৩ থেকে ৪ জন গৃহবধূ আশামনিকে গণধর্ষণ করেছে বলে এলাকায় অভিযোগ রয়েছে। এ ব্যাপারে জাহাঙ্গীর আলম বাদী হয়ে রনি মিয়াসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে নিকলী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। নিকলী থানার ওসি মুনসুর আলী আরিফ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে