ঠাকুরগাঁওয়ে কিশোর-কিশোরীর আত্মহত্যা, এলাকাজুড়ে চাঞ্চল্য

ঠাকুরগাঁওয়ে কিশোর-কিশোরীর আত্মহত্যা, এলাকাজুড়ে চাঞ্চল্য

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রাজাগাঁও ইউনিয়নে সুমন রায় (১৮) ও রত্না রানী সরকার (১৪) নামে দুই কিশোর কিশোরীর আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে৷ এ নিয়ে এলাকাজুড়ে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

জানা গেছে, সোমবার (৮ আগস্ট) দুপুর ১২টার দিকে সুমন রায় নিজ বাড়িতে ফাঁস দেয়৷ দেড় ঘণ্টার মাথায় রত্না নামের ওই কিশোরী তার নিজ বাড়িতে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে৷

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল হোসেন। মৃত রত্না রানী রাজাগাঁও ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের বাজারামপুর গ্রামের বিনয় সরকারের মেয়ে। সে দারাজগাও হামিদ আলি খান উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণিতে পড়াশোনা করতো। আর একই ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের পাটিয়াডাঙ্গী গ্রামের রবিন রায়ের ছেলে সুমন রায়। সে এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

ওসি জানান, দুপুর ১২টার দিকে ছেলে ও দুপুর দেড়টার দিকে মেয়েটির আত্মহত্যার খবর পাওয়া যায়। খবর পাওয়ার পরেই ঘটনাস্থলে পুলিশ যায়। কী কারণে তারা আত্মহত্যা করলো, এটি এখনো পরিষ্কারভাবে বলা যাচ্ছে না। দুজনের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে।

রাজাগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খাদেমুল ইসলাম বলেন, ‘বেলা ১২টার দিকে সুমন রায়ের আত্মহত্যার খবর পাই৷ এরপর দুপুর দেড়টার দিকে রত্না রানীর আত্মহত্যার খবর পাই। আমি দুই বাড়িতেই যাই, তবে কী কারণে তারা আত্মহত্যা করেছে এখনো পরিষ্কারভাবে বলা যাচ্ছে না।’

স্থানীয়দের ধারণা , প্রেমিকের আত্মহত্যার খবরে হয়তো প্রেমিকা আত্মহত্যা করেছে। তবে তারা প্রেমিক প্রেমিকা ছিল এমন তথ্য এখন পর্যন্ত নিশ্চিত করে কেউই দিতে পারেনি।

ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল হোসেন বলেন, ‘এ বিষয়ে থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। ময়না তদন্ত ও জিজ্ঞাসাবাদে বেড়িয়ে আসবে মৃত্যুর আসল কারণ।'

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে