logo
শনিবার ২৪ আগস্ট, ২০১৯, ৯ ভাদ্র ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১৯ জুন ২০১৯, ০০:০০  

বার্মিংহামে আজ ছড়ি ঘোরাতে পারেন যারা

রাবাদার ইয়র্কার

ফার্গুসনের গতি

বয়স মাত্র চব্বিশ হলে কী হবে, ইতোমধ্যেই বিশ্বের অন্যতম সেরা বোলারের তকমা আদায় করে নিয়েছেন রাবাদা। ডেল স্টেইনের অবর্তমানে দক্ষিণ আফ্রিকার পেস বোলিংয়ের দায়িত্ব এখন তার কাঁধে। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেও সফল এই ফাস্ট বোলার। উইলিয়ামসনদের বিপক্ষে তার গড় মাত্র ১৯.৮২। দেখার মতো বোলিং অ্যাকশন রাবাদার। অনেকটা দৌড়ে এসে যেভাবে দ্রম্নতগতিতে বল ছোড়েন তা অতুলনীয়। কিউইদের বিপক্ষে প্রোটিয়াদের বাঁচা-মরার লড়াইয়ে আজ তার ওপর অনেক কিছু নির্ভর করবে।

অন্যদিকে, চলতি বিশ্বকাপে এখনো পর্যন্ত সর্বোচ্চ উইকেট শিকারিদের তালিকায় আছেন লাকি ফার্গুসন। একদিনের ম্যাচে ফার্গুসনের বোলিং গড় ২৬.০৯। তবে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পরিসংখ্যানটা আরেকটু সমৃদ্ধ। এই বিশ্বকাপে ফাস্ট বোলাররা পেস, বাউন্স দুটোই পেয়েছেন। এই পরিবেশে তিনি চাইবেন তার পুনরাবৃত্তি ঘটাতে। দেখা যাক রাবাদা নাকি ফার্গুসন হাই-ভোল্টেজ এই ম্যাচে কে ছড়ি ঘুরায়।

ক্ষুধার্ত ডি কক

ধারাবাহিক টেলর

দলকে ভালো শুরু এনে দিতে এবং ভালো স্কোর গড়তে উদ্বোধনী জুটির কার্যকরী ইনিংস গুরুত্বপূর্ণ। আর এবারের আসরেই সেটা আবারও প্রমাণ হয়েছে। এ পর্যন্ত যে কয়টি দল ব্যাটিংয়ে নেমে ভালো শুরু করেছেন তারাই রানের চাকাকে বেশি সচল রাখতে পেরেছেন। জয়ের নোঙরেও পৌঁছেছেন অধিকাংশ ক্ষেত্রে। প্রোটিয়াদের হয়ে সে কাজটা বিশ্বকাপের আগে ভালোমতোই সামলেছেন ডি কক-হাশিম আমলা জুটি। কিন্তু বিশ্বকাপের শুরু থেকেই দুজনের কেউই সেরা ফর্মে নেই। তার দিকে তাকিয়ে প্রোটিয়া শিবির। দেখা যাক তিনি প্রত্যাশা পূরণ করতে পারেন কিনা।

অন্যদিকে, এবারের আসরের সবচেয়ে অভিজ্ঞ ও ধারাবাহিক ব্যাটসম্যানদের একজন রস টেলর। যতক্ষণ ২২ গজের বৃত্তে থাকেন ঠান্ডা মাথায় প্রতিপক্ষের বোলারদের ঘাম ছুটিয়ে ছাড়েন। এবারের আসরে ব্যাট হাতেও এখন পর্যন্ত সফল তিনি। তাই আজ তার পারফরমেন্স প্রোটিয়াদের বিপক্ষে ম্যাচের ভাগ্য গড়ে দিতে পারে।

ডু পেস্নসিসের ফেরা

উইলিয়ামসনের অভিজ্ঞতা

টানা তিন হারের পর গত ম্যাচে 'পুচকে' আফগানদের বিপক্ষে জয়ের দেখা পেলেও খুব একটা স্বস্তিতে নেই প্রোটিয়া শিবির। অঘটন যা ঘটার ঘটে গেছে। এখন সেমিফাইনালের স্বপ্ন জিইয়ে রাখতে বাকি ম্যাচগুলোতে কেবল জিতলেই হবে না অন্যদলগুলোর দিকেও তাকিয়ে থাকতে হবে। তাই বলাই যায়, এবারের বিশ্বকাপে দুঃস্বপ্নের মতো সময় পার করছে প্রোটিয়ারা। তবে আফগানদের বিপক্ষে হারে নতুন করে আশা দেখাচ্ছে তাদের। এখন প্রয়োজন ডু পেস্নসিসের একটা অনবদ্য ইনিংস। হবে নাকি আজ?

অন্যদিকে, গত দুটো ম্যাচে ৪০ আর অপরাজিত ৭৯ করেছেন নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক। তার আগে দুটো প্রস্তুতি ম্যাচ মিলিয়ে করেছেন ১৫২। দারুণ ফর্মে আছেন তিনি। এ ছাড়া এজবাস্টনে গত ম্যাচেও শত রান করেছিলেন তিনি। সোজা ব্যাটে যেমন অসামান্য শট খেলতে পারেন, তেমন মাঠের যে কোনো দিকে বল পাঠাতে সক্ষম। স্পিন যেভাবে সামলাতে পারেন, পেস বলের মোকাবেলাতেও সমান পারদর্শী। আজ তার দিকে তাকিয়ে থাকবে কিউইরা।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে