শার্শা ও বেনাপোলে দুই শিশু ধর্ষণের অভিযোগ

শার্শা ও বেনাপোলে দুই শিশু ধর্ষণের অভিযোগ

বেনাপোল ও শার্শায় দুই শিশু ধর্ষিত হওয়ার অভিযোগ উঠেছে। ধর্ষণের অভিযোগে শার্শার রামপুর গ্রামের কিশোর সাগর হোসেনকে (১৫) আটক করেছে পুলিশ। অন্যদিকে ধর্ষণের অভিযোগে বেনাপোল দারুস সালাম কওমি মাদ্রাসার ৪ শিক্ষককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে এসেছে পুলিশ। উভয় শিশুর বয়স ৫-৬ বছর।

শার্শা ইউপি সদস্য কবির হোসেন বলেন, ঘটনাটি জানার পর মেয়ের বাবা-মাকে থানায় পাঠানো হয়েছে এবং থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।

অপরদিকে বেনাপোল পোর্ট থানায় ভবেরবেড় গ্রামের ওই শিশুর পিতা অভিযোগ করার পর শিশুকে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। শিশুর পিতা বলেন, 'তার মেয়ের রক্তক্ষরণ হচ্ছে। সে সকাল ৯টায় মাদ্রাসায় পড়তে যায়। রোববার সবাইকে ছুটি দিয়ে ওই মাদ্রাসায় নতুন যোগদান করা একজন শিক্ষক তার মেয়েকে ধর্ষণ করেছে। আমরা এর সুষ্ঠু বিচার চাই।' ধর্ষণ সন্দেহে ভবেরবেড় দারুস সালাম কওমি মাদ্রাসার ৪ শিক্ষককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আনা হয়েছে।

নতুন হুজুরের নাম জানতে চাইলে ওই মাদ্রাসার জনৈক শিক্ষক বলেন, তার নাম হাফেজ সালমান। হাফেজ সালমানের কাছে বিষয়টি জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সঙ্গে জড়িত নন বলে জানান।

বেনাপোল পোর্ট থানার এসআই রোকন বলেন, শিশুটি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। শিশুটি আসার পর ধর্ষণকারীকে শনাক্ত করা হবে। শার্শা থানার ওসি বদরুল আলম বলেন, শিশু ধর্ষণের ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে। যার নং-২৯, তারিখ-২৪-০১-২১।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে