logo
বুধবার, ২০ নভেম্বর ২০১৯, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০  

ইবি প্রশাসনকে হুমকি ছাত্রলীগের

ইবি প্রতিনিধি

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের পদবঞ্চিত নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট অফিসে গিয়ে দৈনিক কর্মচারীদের তালিকা চাওয়াসহ নানা অভিযোগ উঠেছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট অফিস সূত্র জানায়, বুধবার ছাত্রলীগের পদবঞ্চিত নেতা মিজানুর রহমান লালন এস্টেট অফিসে অফিস প্রধান সাইফুল আলমের কাছে তার দপ্তরে কতজন শ্রমিক দৈনিক মজুরিতে কাজ করে, তার তালিকা চান।

এ বিষয়ে এস্টেট অফিসের উপ-রেজিস্ট্রার সাইফুল আলম বলেন, তারা অফিসে গিয়ে দৈনিক শ্রমিকদের তালিকা চেয়েছিল।

গত শনিবার শিক্ষার্থীদের আবাসিকতা নিয়ে হল প্রভোস্টদের সঙ্গে আলোচনায় বসে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। শুধুমাত্র আবাসিক শিক্ষার্থীরাই হলে থাকবে- এমন একটি সিদ্ধান্ত নেয়া হয় সভায়। এরপর ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের ওপর চড়াও হয়।

অভিযোগের বিষয়ে ছাত্রলীগ নেতা মিজানুর রহমান লালন বলেন, 'আমাদের কাছে তথ্য আছে, বিএনপি-জামাতের লোকেরা দৈনিক মজুরিতে ক্যাম্পাসে কাজ করছে। এ জন্য এস্টেট অফিসে তালিকা নিতে গিয়েছি।'

এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য বলেন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের এসব নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ তারা পেয়েছেন। দ্রম্নত সময়ের মধ্যে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শিক্ষকদের সংগঠন শাপলা ফোরামের সাধারণ সম্পাদক ও সিন্ডিকেট সদস্য অধ্যাপক ড. মাহবুবর রহমান বলেন, একজন শিক্ষার্থী কোনো অবস্থাতেই সরাসরি এস্টেট অফিসে গিয়ে তালিকা চাইতে পারেন না।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. পরেশ চন্দ্র বর্ম্মণ বলেন, এস্টেট অফিসের বিষয়টি তিনি শুনেছেন। এটি খুবই দুঃখজনক। এসব কাজ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের। কারও কাছে অভিযোগের প্রমাণ থাকলে তা যথাযথ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে সমাধান হতে পারে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে