logo
বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০, ১৮ চৈত্র ১৪২৫

  রামগতি (লক্ষ্ণীপুর) সংবাদদাতা   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০  

সরকারি ধান ক্রয়ে কৃষকের চোখে হাসির ঝিলিক

লক্ষ্ণীপুরের রামগতি সরকারি খাদ্যগুদামে প্রান্তিক কৃষকের কাছ থেকে আমন ধান ক্রয় করছে সরকার। বাজারে যখন ধানের মণ প্রতি ক্রয় বিক্রয় চলছে ৭০০-৭৫০ টাকা দরে তখন সরকার কৃষকের কাছ থেকে ধান ক্রয় করছে মণ প্রতি ১০৪০ টাকা দরে। কৃষি বিভাগের তালিকাভুক্ত কৃষকরা কোন প্রকার ঝুট ঝামেলা ছাড়াই সরাসরি গুদামে ধান এনে বিক্রি করে ব্যাংকের মাধ্যমে টাকা বুঝে নিচ্ছে। নেই কোনো মধ্যস্বত্বভোগীর দৌরাত্ম্য। এর ফলে কৃষকের চোখে মুখে এখন হাসির ঝিলিক।

কৃষক মনিরুল ইসলাম, মোকছেদসহ অনেকে বলেন, ঝামেলাহীনভাবে অনেক চড়া মূল্যে দালাল বা ফড়িয়া ছাড়া ধান বিক্রি করতে পারায় তারা দারুণ খুশি। এতে প্রতিটি কৃষকের ঘরে ঘরে আনন্দের বন্যা বয়ে যাচ্ছে। খাদ্য কর্মকর্তা, ওসিএলএসডি মো. আফসার উদ্দিনসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাগণ খুবই নিষ্ঠা ও আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করেছেন। তাদের কঠোর পরিশ্রম প্রশংসনীয়।

এ বিষয়ে উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা প্রবির কুমার মন্ডল জানান, রামগতিতে ২৪১৪ মে.টন ধান ক্রয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। কৃষকরা ধানের স্যাম্পলিং করে সিরিয়াল নিয়ে পর্যায়ক্রমে গুদাম গেটে ধান বিক্রি করে তার প্রাপ্য টাকার স্স্নিপ ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা দিয়ে টাকা বুঝে নিচ্ছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল মোমিন জানান, কৃষক হয়রানি ছাড়াই খুব সহজভাবে যাতে সরকার নির্ধারিত মূল্যে ধান বিক্রি করে উপকৃত হতে পারে তার জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে