শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১

অতীশ দীপঙ্কর ইউনিভার্সিটিতে পুরকৌশল বিভাগের উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা

যাযাদি ডেস্ক
  ২৮ মে ২০২৪, ১১:৫৮
ছবি: যায়যায়দিন

‘এসো হে নতুন, বাজিয়ে সুর লহরী উল্লসিত নবীন' এই অনুভব নিয়ে অতীশ দীপঙ্কর ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি এর পুরকৌশল বিভাগের উদ্যোগে প্রথম বারের মতো অনুষ্ঠিত হয়েছে নবাগত ফ্যাকাল্টি মুহাইমিনুল ইসলাম আলিম (বিএসসি ইঞ্জিনিয়ারিং, কুয়েট), তাসনিয়া তাবাসসুম আনিকা (বিএসসি ইঞ্জিনিয়ারিং কুয়েট), জেবা ফারিহা (বিএসসি ইঞ্জিনিয়ারিং রুয়েট) এবং শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠান।

উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ড অব ট্রাস্টিজ এর চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট লিয়াকত সিকদার এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে বোর্ড অব ট্রাস্টিজ এর সম্মানিত সদস্য সৈয়দ মোহাম্মদ হেমায়েত হোসেন ও মো. জোনায়েত আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।

আরো উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. জাহাঙ্গীর আলম, ট্রেজারার এ.কে.এম দেলোয়ার হোসেন, ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টেকনোলজি অনুষদের ডিন এবং ব্র্যান্ড, কমিউনিকেশন অ্যান্ড এক্সটার্নাল অ্যাফেয়ার্স-এর উপদেষ্টা প্রফেসর ড. মো. শাহরুখ আদনান খান, বিভাগের শিক্ষক মো. রিফাত জামান ও শিক্ষার্থীবৃন্দ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন পুরকৌশল বিভাগের চেয়ারম্যান ড. জাবের আহমদ এবং সঞ্চালনা করেন কো-অর্ডিনেটর ইঞ্জিঃ মো. ইব্রাহিম ইসলাম ইফতি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বোর্ড অব ট্রাস্টিজের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট লিয়াকত সিকদার বিশ্ববিদ্যালয়ের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা সকলের সামনে তুলে ধরেন এবং ২০২৫ সালে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪র্থ সমাবর্তনে পুরকৌশল বিভাগের প্রথম ব্যাচ অংশগ্রহণ করতে পারবে বলে ঘোষণা করেন। উপস্থিত সকলে করতালির মাধ্যমে এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানান। তিনি তাঁর অনুপ্রেরণা মূলক বক্তব্যে পুরকৌশল বিভাগের চেয়ারম্যান ড. জাবের আহমদের ভূয়সী প্রশংসা করেন এবং এই বিশ্ববিদ্যালয় এবং দেশের সার্বিক উন্নয়নে পুরকৌশল বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা নিরলসভাবে কাজ করে যাবে বলে আশা ব্যক্ত করেন।

বোর্ড অব ট্রাস্টিজ এর সম্মানিত সদস্য সৈয়দ মোহাম্মদ হেমায়েত হোসেন বাংলাদেশের অবকাঠামোগত উন্নয়ন ও সমৃদ্ধিতে ভূমিকা রাখতে পুরকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থীদের প্রয়োজনীয় সক্ষমতা অর্জনের উপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি স্বল্প সময়ের এই আয়োজনকে ধারণার থেকেও বেশি সুন্দর হয়েছে বলে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন।

বোর্ড অব ট্রাস্টিজ এর সম্মানিত সদস্য মো. জোনায়েত আহমেদ স্বল্প সময়ে পুরকৌশল বিভাগের উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে সকল শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অনুপ্রাণিত করেন এবং এ ব্যাপারে তিনি যথেষ্ট আশাবাদী বলেও মন্তব্য করেন।

বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. জাহাঙ্গীর আলম পুরকৌশল বিভাগের ধারাবাহিক উন্নতিতে সন্তোষ প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, ড. জাবের আহমেদ এই বিভাগে যোগদান করার পর বিভাগের কর্মকান্ড ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। ভবিষ্যতেও এই ধারা অব্যাহত থাকবে বলে তিনি আশা ব্যক্ত করেন। তিনি একটি সফল ও সুন্দর অনুষ্ঠানের জন্য সকলকে কৃতজ্ঞতা জানান। এসময় নতুন শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের মাঝে ফুলেল শুভেচ্ছা ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

প্রফেসর ড. মো. শাহরুখ আদনান খান বলেন, এই বিভাগ ভালোভাবে এগিয়ে যাচ্ছে বলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ অত্যন্ত খুশি। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ভবিষ্যতেও সার্বিকভাবে এই বিভাগের পাশে থাকবে। তিনি বলেন, ছাত্র-ছাত্রীদের সুবিধার্থে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নতুন রুটে বাস সার্ভিস চালু করেছে।

স্বাগত বক্তব্যে ড. জাবের আহমদ পুরকৌশল বিভাগের কর্মকাণ্ড বৃদ্ধি, কোয়ালিটি এডুকেশন নিশ্চিতকরণ এবং সার্বিকভাবে শিক্ষার্থীদের তাত্ত্বিক ও ব্যবহারিক দক্ষতা বৃদ্ধিতে নবীণ শিক্ষকদের প্রতি আহ্বান জানান। এসময় তিনি পুরকৌশল বিভাগের ল্যাবরেটরির যন্ত্রপাতি এবং শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ক্লাসরুম নিশ্চিতকরণের আশ্বাস দেয়ার জন্য বোর্ড অব ট্রাস্টিজের মেম্বারদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

অভিব্যক্তি প্রকাশকালে নবাগত ফ্যাকাল্টি ও শিক্ষার্থীরা বিভাগের ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল কর্মকান্ডে সক্রিয়ভাবে যুক্ত হয়ে ভবিষ্যতে নিজ নিজ কর্মক্ষেত্রে মেধা ও দক্ষতার স্বাক্ষর রাখার ব্যাপারে দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এখানে পড়াশোনা করার মনোরম পরিবেশ তৈরি করে দেয়ার জন্য শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

যাযাদি/ এসএম

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে