মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১০ বৈশাখ ১৪৩১

এসিআই লিমিটেডের আয় বেড়েছে ৯.৪৩%

যাযাদি ডেস্ক
  ৩১ জানুয়ারি ২০২৪, ১২:৪৬

এসিআই লিমিটেডের চলতি ২০২৩-২৪ হিসাব বছরের প্রথমার্ধে (জুলাই-ডিসেম্বর) সমন্বিত আয় বেড়েছে ৯ দশমিক ৪৩ শতাংশ। সমন্বিত আয় বাড়লেও একই সময়ে কোম্পানিটির সমন্বিত লোকসান হয়েছে। কোম্পানিটির দ্বিতীয় প্রান্তিকের (অক্টোবর-ডিসেম্বর) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

তথ্য অনুসারে, চলতি হিসাব বছরের প্রথমার্ধে কোম্পানিটির সমন্বিত আয় হয়েছে ৬ হাজার ২৪৪ কোটি ৩৩ লাখ টাকা, আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল ৫ হাজার ৭০৬ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। সে হিসাবে কোম্পানিটির সমন্বিত আয় বেড়েছে ৫৩৭ কোটি ৮৪ লাখ টাকা বা ৯ দশমিক ৪৩ শতাংশ। আলোচ্য সময়ে কোম্পানিটির কর-পরবর্তী সমন্বিত নিট লোকসান হয়েছে ৪৯ কোটি ১৪ লাখ টাকা। আগের হিসাব বছরের একই সময়ে কোম্পানিটির সমন্বিত নিট মুনাফা হয়েছিল ১৭ কোটি ৯৩ লাখ টাকা।

কোম্পানিটির কর্মকর্তারা বলছেন, আর্থিক ব্যয় ও আয়কর বাবদ খরচ বেড়ে যাওয়ার কারণে লোকসান গুনতে হয়েছে।

চলতি হিসাব বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে কোম্পানিটির সমন্বিত আয় হয়েছে ৩ হাজার ২০৩ কোটি ৮০ লাখ টাকা, আগের হিসাব বছরের একই প্রান্তিকে যা ছিল ৩ হাজার ২৮ কোটি ৯ লাখ টাকা। আলোচ্য সময়ে কোম্পানিটির সমন্বিত নিট লোকসান হয়েছে ৩৫ কোটি ৩ লাখ টাকা। আগের হিসাব বছরের একই প্রান্তিকে কোম্পানিটির সমন্বিত নিট মুনাফা হয়েছিল ৩৬ কোটি ৫৩ লাখ টাকা। দ্বিতীয় প্রান্তিকে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত লোকসান হয়েছে ৬ টাকা ৩৫ পয়সা। আগের হিসাব বছরের একই সময়ে শেয়ারপ্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ১ টাকা ৯৬ পয়সায়। গত ৩১ ডিসেম্বর শেষে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়ায় ৯৮ টাকা ৯৭ পয়সায়।

সর্বশেষ সমাপ্ত ২০২২-২৩ হিসাব বছরে বিনিয়োগকারীদের জন্য ৪০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে কোম্পানিটির পর্ষদ।

আলোচ্য হিসাব বছরে কোম্পানিটির সমন্বিত শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ৬ টাকা ৪৮ পয়সা। আগের হিসাব বছরে কোম্পানির ইপিএস হয়েছিল ৪ টাকা ৯৮ পয়সা। গত ৩০ জুন শেষে কোম্পানিটির সমন্বিত এনএভিপিএস দাঁড়িয়েছে ১১৩ টাকা ৬৭ পয়সায়।

ঋণমান দীর্ঘমেয়াদে ডাবল এ মাইনাস ও স্বল্পমেয়াদে এসটি-টু। ৩০ জুন সমাপ্ত ২০২৩ হিসাব বছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২৩ পর্যন্ত নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন ও রেটিং ঘোষণার দিন পর্যন্ত প্রাসঙ্গিক অন্যান্য গুণগত ও পরিমাণগত তথ্যের ওপর ভিত্তি করে এ প্রত্যয়ন করেছে ক্রেডিট রেটিং ইনফরমেশন অ্যান্ড সার্ভিসেস লিমিটেড (সিআরআইএসএল)।

সমাপ্ত ২০২১-২২ হিসাব বছরের জন্য বিনিয়োগকারীদের ৫০ শতাংশ নগদ ও ৫ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ দিয়েছে এসিআই লিমিটেড। আলোচ্য হিসাব বছরে কোম্পানিটির কর-পরবর্তী সমন্বিত নিট মুনাফা হয়েছে ৩৭ কোটি ৯৬ লাখ টাকা, আগের হিসাব বছরে যা ছিল ৩৪ কোটি ৭১ লাখ টাকা। সে হিসাবে এক বছরের ব্যবধানে কোম্পানিটির কর-পরবর্তী সমন্বিত নিট মুনাফা বেড়েছে ৯ দশমিক ৩৪ শতাংশ। আলোচ্য হিসাব বছরে কোম্পানিটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছে ৫ টাকা ২৩ পয়সা, আগের হিসাব বছরে যা ছিল ৪ টাকা ৭৮ পয়সা। ৩০ জুন ২০২২ শেষে কোম্পানিটির সমন্বিত এনএভিপিএস দাঁড়ায় ১৪১ টাকা ৯৮ পয়সায়, আগের হিসাব বছর শেষে যা ছিল ১৪১ টাকা ৪৩ পয়সা।

সমাপ্ত ২০২০-২১ হিসাব বছরের জন্য বিনিয়োগকারীদের মোট ৮০ শতাংশ লভ্যাংশ দিয়েছে এসিআই লিমিটেড। এর মধ্যে ৬৫ শতাংশ নগদ ও বাকি ১৫ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ। সমাপ্ত ২০১৯-২০ হিসাব বছরে ৯০ শতাংশ লভ্যাংশ দেয় কোম্পানি। এর মধ্যে ৮০ শতাংশ নগদ ও ১০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ। আগের হিসাব বছরে ১১৫ শতাংশ লভ্যাংশ দিয়েছিল কোম্পানিটি। এর মধ্যে ১০০ শতাংশ নগদ ও বাকি ১৫ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ। ২০১৭-১৮ হিসাব বছরের জন্য ১১৮ দশমিক ৫০ শতাংশ লভ্যাংশ পেয়েছিলেন কোম্পানিটির শেয়ারহোল্ডাররা। এর মধ্যে ১১৫ শতাংশ নগদ ও সাড়ে ৩ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ।

যাযাদি/ এসএম

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে