বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

বঙ্গবন্ধু সেতু-ঢাকা মহাসড়কে ফের দীর্ঘ যানজট

স্টাফ রিপোর্টার, টাঙ্গাইল
  ১০ জুন ২০২৩, ১৩:৪৫
বঙ্গবন্ধু সেতু-ঢাকা মহাসড়কে ফের দীর্ঘ যানজট

বঙ্গবন্ধু সেতু-ঢাকা মহাসড়কে অতিরিক্ত যানবাহনের চাপ, পরিবহণ বিকল হওয়া, দুর্ঘটনা ও চালকদের বেপরোয়া গাড়ির চালানোর ফলে গত তিন দিন ধরে গভীর রাত থেকে সকাল পর্যন্ত দীর্ঘ যানজট হচ্ছে।

শনিবার (১০ জুন) পূর্বরাত দেড়টা থেকে বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্বপ্রান্তের গোল চত্তর থেকে কালিহাতী উপজেলার এলেঙ্গা পর্যন্ত ১৪ কিলোমিটার এলাকায় যানজটের সৃষ্টি হয়।

বঙ্গবন্ধু সেতু ট্রাফিক কন্ট্রোল রুম (টিসিআর) সূত্রে জানা যায়, শনিবার পূর্ব রাত দেড় টার দিকে মহাসড়কের কামাক্ষার মোড় এলাকায় একটি পিকআপ ভ্যান উল্টে যায়। সেই পিকআপ ভ্যানটি সরাতে প্রায় এক ঘণ্টার মতো সময় লেগে যায়। এ সময় মহাসড়কে অতিরিক্ত যানবাহনের চাপ বেড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। পুলিশি তৎপরতায় শনিবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

এরআগে শুক্রবার(৯ জুন) পূর্বরাত থেকে সকাল সাড়ে ৯টা পর্যন্ত ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ যানজট হয়। রাত দেড়টার দিকে মহাসড়কের কালিহাতী উপজেলার কামাক্ষার মোড় এলাকায় চলন্ত ট্রাকের এক্সেলসহ চাকা খুলে যায়। ফলে মহাসড়কের দুই লেনে যানবাহন চলাচল বিঘ্ন হয়। মহাসড়কে যানজটের ফলে ঢাকাগামী যানবাহনগুলো সেতু পাড় হয়ে গোলচত্বরে থেকে ভূঞাপুর-এলেঙ্গা লিংক রোড ব্যবহার করে ঢাকার দিকে যায়।

বঙ্গবন্ধু সেতু-ঢাকা মহাসড়কে পণ্যবাহী পরিবহণ বিকল হয়ে পড়ায় বৃহস্পতিবার (৮ জুন) ভোর থেকে দীর্ঘ প্রায় ২৫ কিলোমিটার যানজটের সৃষ্টি হয়। বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্বপ্রান্ত থেকে টাঙ্গাইল সদর উপজেলার রাবনা বাইপাস পর্যন্ত যানজটের সারি দীর্ঘ হয়। হাইওয়ে, ট্রাফিক ও জেলা পুলিশের তৎপরতায় বেলা বাড়ার সাথে সাথে যান চলাচল শুরু হয়। বঙ্গবন্ধু সেতুর গোল চত্তর থেকে এলেঙ্গা পর্যন্ত টু ওয়ে রোডের একাধিক স্থানে পণ্যবাহী যানবাহন বিকল হওয়ায় ওই যানজটের সৃষ্টি হয়।

মহাসড়কে পৃথক তিনটি স্থানে সবজিবাহী ট্রাক ও যাত্রীবাহী বাস বিকল হওয়ায় বুধবার(৭ জুন) সকালে প্রথমে প্রায় ১৪ কিলোমিটার এলাকায় থেমে থেমে যানজট হয়। পুলিশি তৎপরতা অব্যাহত থাকায় দুপুরের দিকে বিকল গাড়ি সড়িয়ে নেওয়ায় পর ধীরে ধীরে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্বপাড় থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) সফিকুল ইসলাম, এলেঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ পুলিশ ফাঁড়ির কর্মকর্তা মো. শরিফ উদ্দিন সহ সংশ্লিষ্টরা জানান, মহাসড়কে অতিরিক্ত যানবাহনের চাপ, টু ওয়ে লেনে পরিবহণ বিকল হওয়া, পণ্য ও যাত্রীবাহী যানবাহন দুর্ঘটনা ও রাতে চালকদের বেপরোয়া গাড়ির চালানোর কারণে বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্বপান্তের গোল চত্বর থেকে এলেঙ্গা পর্যন্ত মহাসড়কে যানজট বাড়ছে।

তারা জানান, এলেঙ্গা থেকে বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্বপ্রান্তের গোল চত্তর পর্যন্ত টু ওয়ে রোড ফোর লেনে উন্নীত করণের কাজ চলছে। ফোর লেনে উন্নীতকরণের কাজ শেষ হলে মহাসড়কে যানজট স্থায়ীভাবে নিরসন হবে। বর্তমানে ট্রাফিক, হাইওয়ে ও জেলা পুলিশের তৎপরতায় মহসড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক থাকছে।

যাযাদি/ এসএম

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে