বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

মা-সন্তান মিলেই নগরীর সকল উন্নয়ন কাজ করবো : জাহাঙ্গীর 

গাজীপুর প্রতিনিধি
  ২৬ মে ২০২৩, ১০:৩১
মা-সন্তান মিলেই নগরীর সকল উন্নয়ন কাজ করবো : জাহাঙ্গীর 

গাজীপুর সিটি নির্বাচনে বিজয়ী স্বতন্ত্র প্রার্থী জায়েদা খাতুন গাজীপুর সিটির ভোটটা সুষ্ঠু করার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, আমি আমার বিজয়টাকে গাজীপুর নগরীর মানুষ এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দেব। আমি আমার ছেলে নিরপরাধ আমাকে বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রমাণ করার জন্য, নগরীর উন্নয়নের জন্য সবার সহযোগিতায় মা-ছেলে একত্রে কাজ করবেন।

মেয়র পদে বিজয়ের পর বৃহসপতিবার দিবাগত রাতে নগরীর ছয়দানা এলাকায় বাসভবনে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নে জবাবে স্বতস্ত্র মেয়র প্রার্থী ও সাবেক মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলমের মা জায়েদা খাতুন এসব কথা বলেন। এসময় জাহাঙ্গীর আলমও সঙ্গে ছিলেন।

জায়েদা বলেন, গাজীপুর বাসী আমাকে বিজয়ী করেছে এ ঋণ শোধ করবো এলাকার কাজের মাধ্যমে। এটা আমি এক করতে পারবো। আমার ছেলেকে সাথে নিয়ে ছেলের বাকি কাজগুলো করবো।

তিনি আরো বলেন, আমার ছেলে নিরপরাধ। আমার ছেলের সত্য প্রমাণ করার জন্য ভোটে দাঁড়িয়েছিলাম। এখন শহরের উন্নয়নমূলক যে কাজগুলো করবো তা আমার ছেলেসহ সকলের সহযোগিতা নিয়েই করবো। এমনকি এসব কাজে প্রয়োজনে তিনি আজমত উল্লার পরামর্শ ও সহযোগিতা নেবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। আমাকে মানুষ কিরকম ভালবোসে তার প্রমান করার জন্যেও তিনি এবারের ভোটে দাড়িয়ে ছিলেন বলেন জায়েদা।

মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বলেন, আমার মা আমার শিক্ষকের মতো, আমার সকল কাজ উনি পরামর্শ দিয়েছেন, দেখভাল করেছেন,। আজ আমি মেয়রে নেই কিন্তু উনি মেয়র পদে বিজয়ী হয়েছেন। আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সহযোগিতায় মা’র কাজে যতরকমের সহযোগিতা দরকার আমি তার পাশে থেকে করবো। গাজীপুর বাংলাদেশের বৃহত্তম সিটি করপোরেশন। আজমত উল্লাহ খান আমার বড় ভাই আজমত উল্লা এবং যারা এখানে নির্বাচন করেছেন এবং রাজনৈতিকভাবে প্রতিষ্ঠিত তাদেরসহ সকলের সহযোগিতায় আমি গাজীপুরকে একটি সুন্দর ও আধুনিক শহর হসেবে গড়ে তুলতে চেষ্টা করবো। বিগত সময়ে জনপ্রতিনিধি হিসেবে আমার যে অভিজ্ঞতা আছে তা কাজে লাগিয়ে আমি আমার মাকে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করতে আমি প্রস্তুত। আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শে সকলের সহয়োগিতা নিয়ে শহরটাকা যাতে সুন্দর করে সাজাতে পারি তার জন্য কাজ করবো। যাতে এখানে কেউ ভুল না বুঝে এবং কেউ কোন গুজব ছড়াতে না পারে। আমার শহরবাসী আমাদের বিশ্বাস করেছে, বড় বিপদে আমার পাশে ছিল। এ নির্বাচনে বড় মানুষরা ছিল না কিন্তু খেটে খাওয়া মানুষ সহ সকলেই মা-ছেলের পাশে ছিল। আমরা মা ছেলে ও জীবনের সবকিছু দিয়ে এ শহরবাসীর কাজ করার জন্য চেষ্টা করবো। এ শহরে যেন মানুষ সুন্দরভাবে বসবাস করতে পারে।

যাযাদি/এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে