শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১

পাবনায় আধিপত্য বিস্তারে ছাত্রলীগ কর্মী মনা খুন ৩ আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৯

পাবনা প্রতিনিধি
  ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০০:০০
পাবনায় আধিপত্য বিস্তারে ছাত্রলীগ কর্মী মনা খুন ৩ আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৯

পাবনার পদ্মা নদীর অবৈধ বালু ব্যবসার নিয়ন্ত্রণসহ আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ঈশ্বরদীতে ছাত্রলীগ নেতা তাফসির আহমেদ মনা (২৪) খুন হন। চাঞ্চল্যকর এই হত্যাকান্ডের রহস্য উদ্ঘাটনসহ ৯ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ সময় তিনটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ অস্ত্র তৈরির বিপুল সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়।

সোমবার পাবনার পুলিশ সুপার কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এমন তথ্য জানান পাবনার পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সি।

নিহত তাফসির আহমেদ মনা উপজেলার পাকশী ইউনিয়নের রুপপুর পাকা রাস্তার মোড় এলাকার তাইজুর রহমান তুহিনের ছেলে। তিনি পাকশী ইউনিয়ন শাখা ছাত্রলীগের কর্মী।

গ্রেপ্তাররা হলেন- ঈশ্বরদীর নতুন রুপপুর গ্রামের ইউনুস আলীর ছেলে মানিক হোসেন (৩৬), সাহাপুর ইউনিয়নের দিয়ার সাহাপুর গ্রামের মুহিদুল হকের ছেলে ফসিউল আলম অনিক (২৭), নতুন রূপপুরের রূপপুরপাড়া এলাকার আতিয়ার রহমানের ছেলে চমন রহমান (৩৮), চর সাহাপুর গ্রামের আক্তার সরদারের ছেলে শাহিন সরদার (২৮), নতুন রূপপুর গ্রামের আজিজ প্রামাণিকের ছেলে রাজিব প্রামাণিক (৩০), চররূপপুর পশ্চিমপাড়া গ্রামের জহুরুল ইসলামের ছেলে আরিফুল ইসলাম (৩২), সলিমপুর গ্রামের শাহজাহান আলীর ছেলে আমজাদ হোসেন অবুঝ (৩৭), চররূপপুর গ্রামের মনিরুল ইসলাম (৩৪), লক্ষ্ণীকুন্ডা গ্রামের মাহফুজুর রহমান কালা (৩৫)।

পুলিশ সুপার বলেন, মনা গত ১৭ জুন রাতে লক্ষ্ণীকুন্ডা ইউনিয়নের পাকুড়িয়া গ্রামে এমপি মার্কেটে ইকবালের অফিসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। এ সময় তিনজন অজ্ঞাতনামা সন্ত্রাসী রূপপুর পারমাণবিক বিদু্যৎকেন্দ্রের শ্রমিকদের অ্যাপ্রোন ও হেলমেট পরে মোটর সাইকেলযোগে এসে মনাকে ৫-৬ রাউন্ড গুলি করে। নৃশংস এই হত্যাকান্ডের পরিপ্রেক্ষিতে নিহত ছাত্রলীগকর্মী মনার মা নাহিদা আক্তার লিপি বাদী হয়ে ঘটনার দুই দিন পর ১৯ জুন ঈশ্বরদী থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। পুলিশ মূলহোতা অনিককে গ্রেপ্তার করলে তার দেওয়া তথ্য ও প্রযুক্তির সহায়তায় ঢাকা, গাজীপুর, কুষ্টিয়া এবং পাবনার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে কিলিং মিশনে সরাসরি অংশগ্রহণকারী মানিকসহ তাদের অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করা হয়।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে