সরকারের সময় ফুরিয়ে এসেছে :ফখরুল

সরকারের সময় ফুরিয়ে এসেছে :ফখরুল
মির্জা ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকারের সময় ফুরিয়ে এসেছে। দেশের যুব সমাজ জেগে উঠেছে। ভোলার আবদুর রহিম ও নুরে আলমের আত্মত্যাগের পাশাপাশি ও যুবকদের দুর্বার গণ আন্দোলনের মধ্য দিয়ে এ দেশকে তারা আবার মুক্ত করবে।

সোমবার বিকালে নয়া পল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এক সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। সমাবেশ থেকে জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি, বিদু্যতের লোডশেডিং এবং সব পণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে নতুন করে দুই দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করে মির্জা ফখরুল আরও বৃহত্তর কর্মসূচি দিয়ে সরকারের পতন ত্বরান্বিত করার হুঁশিয়ারি দেন।

গত ৩১ জুলাই ভোলার সমাবেশে পুলিশের গুলিতে স্বেচ্ছাসেবক দলের আবদুর রহিম ও ছাত্রদলের নুরে আলমের মৃতু্য এবং জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে জাতীয়তাবাদী যুবদলের উদ্যোগে এই সমাবেশ হয়। রাজধানীর বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে হাজার হাজার নেতা-কর্মী এই সমাবেশে অংশ নেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, বিশাল এই যুব সমাবেশে জনসমাগমের মধ্য দিয়ে এটা প্রমাণিত হয়েছে যে, সরকারের দিন ফুরিয়ে এসেছে, তাদের পক্ষে আর সম্ভব হবে না।

দুর্নীতির মাধ্যমে অর্থ লুটের অভিযোগ এনে বিএনপি মহাসচিব বলেন, 'সরকার টিকে আছে মানুষকে প্রতারণা করে। জ্বালানি সংকট, অর্থনৈতিক সংকট, আজকের বিদু্যতের লোডশেডিং, বিদু্যতের সংকট সব কিছুর মূল্যে হচ্ছে এই সরকারের দুর্নীতি, চরম দুর্নীতি। কুইক রেন্টাল পাওয়ার পস্ন্যান্টের নামে তারা হাজার হাজার কোটি টাকা লুট করেছে এবং তাদের নিজস্ব লোকজনদের তারা মুনাফা পাইয়ে দিয়েছে। এক্সপোর্ট প্রমোশন বু্যরোর হিসাব অনুযায়ী গত ৭ বছরে এ দেশ থেকে রপ্তানি হয়েছে ২৭০ দশমিক ৮১ মিলিয়ন ডলার। বাংলাদেশ ব্যাংকে তার হিসাব আছে ২৩৯ দশমিক ৯৬ মিলিয়ন ডলার। বাকি ৩০ দশমিক ৪০ মিলিয়ন ডলার কোথায় গেল? জাতি এটা জানতে চায়। এটা একটা বিরাট শুভংকরের ফাঁকি, বিরাট একটা লুটের চিত্র। এই লুট ও চুরি যে শুরু হয়েছে এই লুট ও চুরি করে তারা এ দেশকে ফোকলা করে দিয়েছে।'

মির্জা ফখরুল বলেন, জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি, বিদু্যতের লোডশেডিং এবং সব পণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে বিএনপি ১১ আগস্ট ঢাকায় নয়া পল্টনের কার্যালয়ের সামনে দুপুর ২টায় প্রতিবাদ সমাবেশ করবে এবং ১২ আগস্ট সারা দেশে মহানগর ও জেলা পর্যায়ে প্রতিবাদে সমাবেশ হবে। এরপর আরও বৃহত্তর কর্মসূচির দিয়ে ভয়াবহ দানবীয় সরকারের পতন ত্বরান্বিত করা হবে।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেন, এই সরকার ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারবে না। এখন শুধু সময়ের ব্যাপার মাত্র।

স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, কর্মসূচিতে আমরা যদি হার্ডলাইনে না যাই তাহলে এই সরকার পতন ঘটাতে পারব না।

যুবদলের সভাপতি সুলতান সালাহউদ্দিন টুকুর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মোনায়েম মুন্নার পরিচালনায় সমাবেশে বিএনপির আমান উলস্নাহ আমান, আবদুস সালাম, সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, ফজলুল হক মিলন, আবদুস সালাম আজাদ, শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, সাইফুল আলম নিরব, যুবদলের মামুন হাসান, নুরুল ইসলাম নয়ন, কামরুজ্জামান দুলাল প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে প্রাইভেট লাঠিয়াল বাহিনী হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে : বামপন্থি ছাত্র সংগঠন প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনের বিক্ষোভ সমাবেশে পুলিশের হামলার প্রতিবাদে এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে 'প্রাইভেট লাঠিয়াল' বাহিনী হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। আওয়ামী লীগের গণভিত্তি ধ্বসে যাওয়ায় তারা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে দিয়ে জনগণের ওপর হামলা চালিয়ে প্রতিনিয়ত রক্ত ঝরাচ্ছে। এই সরকার আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও নিজেদের পেটোয়া ছাত্রলীগ-যুবলীগ দিয়ে গোটা দেশকে ডেঞ্জার জোনে পরিণত করেছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে