বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০
walton

তামিম ইকবালের নতুন অধ্যায়ের সূচনা

ক্রীড়া প্রতিবেদক
  ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩, ০০:০০
মিরপুরে বুধবার ধারাভাষ্য কক্ষে তামিম ইকবাল -ওয়েবসাইট

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ারে এখন শেষ বেলা। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে চলমান টেস্ট সিরিজের দলে নেই ওপেনার তামিম ইকবাল। তবে এবার তাকে ম্যাচ চলাকালে দেখা গেল ভিন্ন ভূমিকায়। খেলার মাঠে না থাকলেও ধারাভাষ্য কক্ষে উপস্থিত হয়েছেন জনপ্রিয় এই ওপেনার। প্রথমবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ধারাভাষ্য দিলেন বাংলাদেশের সফলতম ব্যাটসম্যান। নতুন এক অধ্যায়ের সূর্যোদয় হয়ে গেল তার।

প্রথমবার ধারাভাষ্য দিকে তামিম ফেসবুকে জানালেন তার প্রতিক্রিয়া, 'এই মাঠে তো অসংখ্যবারই এসেছি, তবে এবারের আসা অন্য রকম। অভিষেকের রোমাঞ্চের ছোঁয়া পেলাম যেন নতুন করে। আগে খানিকটা ধারাভাষ্য দিয়েছি বিপিএলে। তবে আন্তর্জাতিক ম্যাচ, বিশেষ করে টেস্ট ম্যাচে ধারাভাষ্যের ব্যাপারটিই তো আলাদা। শুরুর দিনটি দারুণ উপভোগ করেছি। আমার সহ-ধারাভাষ্যকার যারা ছিলেন, প্রডিউসার ও সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা আমার উপস্থিতিকে আনন্দময় করে তোলার জন্য। আশা করি, খুব দ্রম্নতই মাইক্রোফোন হাতে আবার দেখতে পাবেন আমাকে।'

ধারাভাষ্যের অভিজ্ঞতা অবশ্য তার কিছুটা আগেও হয়েছে। ২০২২ সালে বিপিএলে মাইক্রোফোন হাতে নিয়েছিলেন তিনি এই মিরপুরেই। তবে আন্তর্জাতিক ম্যাচে তার এই ভূমিকা এবারই প্রথম। এই সময় তার সঙ্গী ছিলেন ধারাভাষ্যে বাংলাদেশের মুখ হয়ে ওঠা সাবেক অলরাউন্ডার আতহার আলি খান। তামিমের সহ-ধারাভাষ্যকার ছিলেন নিউজিল্যান্ডের গ্রান্ট এলিয়ট।

সিলেট টেস্টে দেড়শ' রানে জয়ের পর বুধবার 'হোম অব ক্রিকেট' মিরপুরে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হয়েছে শান্ত বাহিনী। সেখানে একদিকে মাঠে লড়ছে শান্ত-মুশফিকরা; অন্যদিকে ধারাভাষ্যকক্ষে তাদের সতীর্থ ক্রিকেটার

তামিম ইকবাল।

ভারতে ওয়ানডে বিশ্বকাপ চলাকালে সময়েই এক লাইভ অনুষ্ঠানে নিজের ধারাভাষ্য দেওয়ার ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন তামিম। এই ওপেনার জানিয়েছিলেন, ২০২৪ টি২০ বিশ্বকাপে তাকে ধারাভাষ্যকারের ভূমিকায় দেখা যেতে পারে। এমনকি ভারত বিশ্বকাপেও ধারাভাষ্য দেওয়ার প্রস্তাব পেয়েছিলেন। তবে সেটা শেষ পর্যন্ত আর হয়ে ওঠেনি।

তামিমের ভাষ্যমতে, 'আমার মনে হয় না আমি কোচিং লাইনে আসব। তবে কমেন্ট্রি আমাকে একটু টানে। আসলে এই বিশ্বকাপেও প্রস্তাব এসেছিল আমার কাছে। দুর্ভাগ্যবশত করা হয়নি। খুব সম্ভবত ২০২৪ টি২০ বিশ্বকাপে (আমাকে দেখা যেতে পারে)।'

এরও আগে ২০২১ সালেই টি২০ ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন তামিম ইকবাল। মূলত তরুণদের জায়গা করে দিতে বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে এই ফরম্যাট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন তিনি।

মঙ্গলবার রাতেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে নিজের অফিসিয়াল পেজে বিষয়টি নিশ্চিত করেন তামিম। তবে পাঁচ দিনের এই টেস্টে প্রতিদিনই তামিমকে দেখা যাবে না। আপাতত প্রথম দিন ধারাভাষ্য দেবেন তিনি। তারই ধারাবাহিকতায় বুধবার ধারাভাষ্যে নতুন অভিজ্ঞতার স্বাদ নিলেন দেশসেরা এই ওপেনার। মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড টেস্টের প্রথম দিনের দ্বিতীয় সেশনে দুই দফায় ধারাভাষ্য দেন তামিম।

তামিম ইকবালকে মাঠে ঢুকতে দেখেই মিডিয়া পস্নাজার লিফটের সামনে ক্যামেরা-মাইক্রোফোন হাতে সংবাদকর্মীদের ভিড়। লিফট থেকে বের হয়েই হাসতে হাসতে তামিম বললেন, 'আমার অফিস কোন দিকে?'

এই মাঠে তার বিচরণ অনেক বছর ধরে, অসংখ্যবার এখানে এসেছেন। তবে এবারের আসা একট অন্য রকম, মাঠের এদিকটাও তার একটু অচেনা। তাকে তার অফিস দেখিয়ে দিলেন সংবাদকর্মীরা। সেই অফিসের নাম-ধারাভাষ্য কক্ষ।

ঢাকা টেস্টের প্রথম দিনে প্রেসবক্সে দেখা মিলেছে জাতীয় দলের ওপেনার তামিম ইকবালের। কমেন্ট্রি শুরুর আগে প্রেসবক্সে এসে সেখানে থাকা সাংবাদিকদের সঙ্গে হালকা আড্ডায় মেতে ওঠেন তিনি। বেলা ১২টা ৪০ মিনিটে ধারাভাষ্য কক্ষে আতাহার আলী খান মাইক্রোফোন তুলে দেন তামিমের হাতে। বাংলাদেশি ওপেনার কথা বলতে শুরু করেন ৩৭.২ ওভারে। সে সময় বল করছিলেন এজাজ প্যাটেল এবং ব্যাটিংয়ে ছিলেন মুশফিক। ওভারের প্রথম বলে কোনো রান না এলেও দ্বিতীয় বলে ছক্কা হাঁকান তিনি। এদিকে ৩৮.৩ ওভারে মিচেল স্যান্টনারকে বাউন্ডারি মেরে দলীয় রানের শতক পার করেন মুশফিক।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে