ডিজিটাল নিরাপত্তা মামলা, শিশুবক্তাকে পুলিশে দিল র‌্যাব

ডিজিটাল নিরাপত্তা মামলা, শিশুবক্তাকে পুলিশে দিল র‌্যাব

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রাষ্ট্রবিরোধী উস্কানিমূলক বক্তব্য দিয়ে আলোচনায় আসা ‘শিশুবক্তা’ মাওলানা রফিকুল ইসলাম মাদানীর (২৬) বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে। গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) গাছা থানায় মামলাটি দায়ের করা হয়। মামলা শেষে র‍্যাব মাদানীকে গাছা থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেছে।

বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) সকালে বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সিনিয়র সহকারী পরিচালক (এএসপি) ইমরান খান। তিনি বলেন, রফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে জিএমপির গাছা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে। মামলা শেষে তাকে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

জিএমপির দক্ষিণ বিভাগের গাছা জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার (এসি) আহসানুল হক বলেন, ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে র‍্যাব বাদী হয়ে গতকাল রাতে মামলাটি করে। মামলায় অভিযোগ করা হয় তিনি আইন না মেনে রাষ্ট্রীয় গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের বিষয়ে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করেছেন।’

গত মঙ্গলবার গভীর রাতে নেত্রকোনার পূর্বধলার ঘাগড়া ইউনিয়নের লেটিরকান্দা গ্রামের বাড়ির দরজা ভেঙে তাঁকে আটক করে র‌্যাব-১৪।

সম্প্রতি রফিকুল ইসলাম তার এক বক্তৃতায় বলেছিলেন, ‘রাষ্ট্রপতি মানি, যদি সে ইসলাম মানে। প্রধানমন্ত্রী মানি, যদি সে ইসলাম মানে। এই কচুর প্রধানমন্ত্রী মানি না যদি সে ইসলামের বিরুদ্ধে যায়।’ ইউটিউবসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তার এই বক্তব্যসহ আরও অনেক উসকানিমূলক বক্তব্য প্রচার হলে সরকারের ভেতরে এবং বাইরে প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। এরপরই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গেলো ২৫ মার্চও রাজধানীর শাপলা চত্বরে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বিরোধী বিক্ষোভ মিছিল থেকে এই ‘শিশু বক্তা’ কে আটক করেছিল মতিঝিল থানা পুলিশ। তবে কয়েক ঘণ্টা পরেই তাকে ছেড়ে দেয়া হয়।

যাযাদি/এসএইচ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে