বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

গ্রহনযোগ্য নির্বাচনের ক্ষেত্রে বিএনপিই মূল বাধা : কৃষিমন্ত্রী 

স্টাফ রিপোর্টার, টাঙ্গাইল
  ২৮ মে ২০২৩, ০৯:৫০
ছবি-যাযাদি

আওয়ামী লীগের সভাপতি মন্ডলীর সদস্য কৃষিমন্ত্রী ডক্টর মো. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা নীতি নিয়ে হতাশ ও উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই। এটি যুক্তরাষ্ট্রের কোন নিষেধাজ্ঞা নয়। আমরা যেটি চাই- দেশে একটি সুষ্ঠু নির্বাচন ও গণতান্ত্রিক মূল্যবোধের ভিত্তিতে নির্বাচন- সেটিই যুক্তরাষ্ট্র আগামি নির্বাচনে দেখতে চায়। তিনি বলেন, সুষ্ঠু ও গ্রহনযোগ্য এবং গণতান্ত্রিক মূল্যবোধের নির্বাচনের ক্ষেত্রে বিএনপিই মূল বাধা। আন্দোলন করে, সন্ত্রাস করে বিএনপি নির্বাচনকে ব্যাহত করতে চায়, বানচাল করতে চায়। বিএনপি ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনকে বানচালের চেষ্টা করেছিল। সেরকম ঘটনার পুনরাবৃত্তি যাতে না হয়, মানুষ যাতে নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারে- সেজন্যই যুক্তরাষ্ট্র নতুন ভিসা নীতি ঘোষণা করেছে।

মন্ত্রী বলেন, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে আওয়ামী লীগ বিচলিত নয়। গাজীপুরের নির্বাচন জাতীয় নির্বাচনে কোন প্রভাব ফেলবে না। সিটি কর্পোরেশন-পৌরসভার মতো স্থানীয় সরকার নির্বাচনের ফলাফলে অনেক ফ্যাক্টর কাজ করে। গাজীপুরে সুষ্ঠু, সুন্দর ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন হয়েছে- আমরা সেটিই চেয়েছিলাম। আমরা আগের মতো আবারও জাতিকে দেখিয়েছি বর্তমান সরকারের অধীনে অবাধ, সুষ্ঠু, শান্তিপূর্ণ, সুন্দর ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন সম্ভব। শনিবার(২৭ মে) দুপুরে টাঙ্গাইল শহরের শহীদ স্মৃতি পৌর উদ্যানে জেলা আওয়ামী যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

কৃষিমন্ত্রী ডক্টর রাজ্জাক বলেন, বিএনপি আন্দোলন করে কোনক্রমেই বৈধ সরকারের পতন ঘটাতে পারবে না, আগামি নির্বাচনকেও ব্যাহত করতে পারবে না।

তিনি বলেন, আগামি নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু, শান্তিপূর্ণ, সুন্দর ও গ্রহণযোগ্য হবে। তারপরও বিএনপি যদি ষড়যন্ত্র করে অসাংবিধানিক সরকারকে ক্ষমতায় আনতে চায়, নির্বাচন বানচাল করতে চায়, তাহলে এ দেশের প্রশাসন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী তা মোকাবেলা করবে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে সহযোগিতা করবে।

আওয়ামী যুব লীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ সম্মেলনের উদ্বোধনী বক্তব্যে টাঙ্গাইলে আওয়ামী যুবলীগের সাংগঠনিক কাঠামো শক্তিশালী করার লক্ষে যে কমিটি ঘোষণা করা হবে- তা সবাইকে উৎফুল্লচিত্তে মেনে নিয়ে জনগনের কল্যাণে কাজ করার আহ্বান জানান।

সম্মেলনের প্রধান বক্তা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল বলেন, এক সময় টাঙ্গাইল সন্ত্রাসের জনপদ হিসেবে পরিচিতি পেয়েছিল। বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরত্ন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুচিন্তিত সিদ্ধান্তের ফলে সঠিক নেতৃত্ব এসে টাঙ্গাইলকে শান্তির জনপদে পরিনত করেছে। যারা জনগনের কল্যাণে সাংগঠনিক কাজ সুচারুরূপে পালন করবেন তারাই আগামি নেতৃত্বে আসবেন।

সম্মেলনে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি, আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি মন্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট মামুনুর রশীদ মামুন, সাবেক প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম, টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একুশে পদকপ্রাপ্ত বীরমুক্তিযোদ্ধা ফজলুর রহমান খান ফারুক, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জোয়াহেরুল ইসলাম(ভিপি জোয়াহের) এমপি, টাঙ্গাইলের বিভিন্ন আসনের সংসদ সদস্যবৃন্দ, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য মমতা হেনা লাভলী ও অপরাজিতা হক, আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে