বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১
সা ক্ষা ৎ কা র

আক্ষেপ নয়, অতৃপ্তি আছে

দিলারা হানিফ রিতা- চলচ্চিত্র ও দর্শক মহলে পূর্ণিমা হিসেবেই এক নামে পরিচিত। ঢালিউডে হাতেগোনা যে ক'জন শীর্ষস্থানীয় নায়িকা আপন আলোয় উজ্জ্বল হয়ে অবিরত দু্যতি ছড়াচ্ছেন, তাদের মধ্যে পূর্ণিমা একজন। এরই মধ্যে ক্যারিয়ারের রজতজয়ন্তী পূর্ণ করেছেন একাধিকবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত এই অভিনেত্রী। বড় পর্দার পাশাপাশি ছোট পর্দায় মডেলিং, অভিনয় এবং উপস্থাপনা করেও দু্যতি ছড়িয়েছেন লাস্যময়ী পূর্ণিমা। এছাড়া ওটিটিতেও কাজ করেছেন। স্বামী, সন্তান আর সংসারের ব্যস্ততায় শোবিজে তিনি এখন অনেকটাই অনিয়মিত। চলতি মাসেই ফের কাজ শুরু করবেন তিনি। এ নিয়েই কথা হলো তার সঙ্গে-
  ০২ অক্টোবর ২০২৩, ০০:০০
আক্ষেপ নয়, অতৃপ্তি আছে

সংসারেই বেশি মনোযোগ...

আপনারা নিশ্চয়ই জানেন, আমি আর আগের মতো কাজ করি না। ইচ্ছা থাকলেও কাজ করা হয় না। স্বামী, সন্তান আর সংসারেই বেশি মনোযোগ দিতে হচ্ছে। বর্তমানে সংসার নিয়েই বেশি ব্যস্ত। সব মিলিয়ে ভালোই আছি।

ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করতে চাই না...

বেশ কয়েক মাস কাজ থেকে অনেকটাই বিরতি নিয়েছিলাম। নিজের মতো করেই সময় কাটিয়েছেন। সর্বশেষ কাজল আরেফিন অমির পরিচালনায় 'হোটেল রিল্যাক্স' নামের একটি ওয়েব সিরিজে কাজ করি। এতে অভিনয় করে দর্শকের কাছ থেকে প্রচুর ভালোবাসা পেয়েছি। এই সিরিজটি প্রকাশ্যে আসার পর বেশ কিছু স্ক্রিপ্ট হাতে এসেছিল। কিন্তু সত্যি বলতে কী, আমার মনে হয় ওটিটি আমার জন্য না। সেখানে চরিত্রে অশালীনভাবে উপস্থাপনের বিষয় থাকে। সিনেমার ওই দুঃসময়টাতেই নিজেকে যখন অশালীনভাবে উপস্থাপন করিনি, এখন ওয়েব সিরিজে এসে নিজের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করতে চাই না।

মডেলিংয়ে ফিরছি এ মাসেই...

তবে চলতি মাসের মাঝামাঝিতে বিরতি ভেঙে আবারও মডেলিংয়ে ফিরছি। গত দেড় বছর ধরে ইভা ননস্টিকি কোকোনাট হেয়ার অয়েলের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হই। এই পণ্যের ওভিসি'তে মডেল হিসেবে কাজ করব। দেড় বছরের চুক্তি এরই মধ্যে শেষ হয়ে গেছে, তবে সম্প্রতি আরও দু'বছরের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছি পণ্যটির সঙ্গে। এই মাসের মাঝামাঝিতে প্রতিষ্ঠানটির ইনহাউজ পরিচালকের পরিচালনায় নতুন ওভিসির শুটিংয়ে অংশ নেব ইনশা আলস্নাহ। এরপর ভেবে দেখব ভালো স্ক্রিপ্ট পেলে নতুন সিনেমা, নতুন নাটক কিংবা নতুন ওয়েব সিরিজে কাজ করা যায় কি না!

অনেক উত্থান-পতন দেখেছি...

দেখতে দেখতে ক্যারিয়ারের ২৫টি বছর কেটে গেল। সত্যিই অবিশ্বাস্য মনে হয়। মনে হয় এই তো কিছুদিন আগে জাকির হোসেন রাজু স্যারের সিনেমা দিয়ে চলচ্চিত্রের ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়েছিলাম। কীভাকে এতগুলো সময় কেটে গেল- বুঝতেই পারলাম না। এই ২৫ বছরে কত কিছু ঘটে গেছে চলচ্চিত্রে। উত্থান-পতন দেখেছি। কত জন এসেছেন। কেউ কেউ স্থায়ী হয়েছেন, কেউ আবার জ্বলতে জ্বলতেই নিভে গেছেন। অনেকে আবার শখের চলচ্চিত্রকে গুডবাই জানিয়ে পাড়ি জমিয়েছেন বিদেশের মাটিতে। আমার জীবনেও অনেক ঘটনা ঘটেছে। হয়তো আমারও অনেক কিছু করার ছিল, কিন্তু করা হয়নি।

আক্ষেপ নয় অতৃপ্তি আছে...

ক্যারিয়ারে অনেক পাওয়ার গল্প রয়েছে, তেমনি না পাওয়ার গল্পও আছে। দীর্ঘ সময়ে দর্শকের অনেক ভালোবাসা পেয়েছি, এখনো পাচ্ছি। এক জীবনে এটাই আমি বড় অর্জন হিসেবে দেখি। আক্ষেপ না থাকলেও অনেক অতৃপ্তি রয়েছে। আমাকে নিয়ে আরও ভালো ভালো সিনেমা হতে পারত; কিন্তু তা হয়নি। তবে যা করেছি বা পেয়েছি, সেটাও কম কিসে!

তিন ছবির অপেক্ষায় আছি...

আমি মূলত রুপালি পর্দার মানুষ। অথচ অনেক দিন ধরেই বড় পর্দার দর্শকের কাছ থেকে দূরে সরে রয়েছি। সেই যে কবে জ্যাম ও গাঙচিল নামের দু'টি সিনেমার কাজ শেষ করেছি। সেই ছবি দু'টি কেন যে আলোর মুখ দেখছে না, বুঝতে পারছি না। দু'টি সিনেমার গল্প, চরিত্র ও নির্মাণশৈলী অনেক ভালো হয়েছে। দু'টিতেই আমি কাজ করেছি ফেরদৌস ভাইয়ের বিপরীতে। এরই মধ্যে আমি আর ফেরদৌস ভাই আহারে জীবন নামের আরও একটি সিনেমার কাজ করেছি। ছটকু আহমেদ পরিচালিত এ সিনেমা নিয়েও আমার প্রত্যাশা অনেক। মূলত এই তিনটি ছবির মাধ্যমে দর্শকের কাছে যাওয়ার জন্য চাতক পাখির মতো অপেক্ষায় আছি।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে