শাজাহানপুরে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ

শাজাহানপুরে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ

বগুড়ার শাজাহানপুরে আড়িয়া রহিমাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক পদে অভিজ্ঞতাহীন ও যোগ্যতাহীনকে অভৈধভাবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে বলে অভিযাগে পাওয়া গেছে। সরকারের নিয়োগ বিধি ও নিয়মনীতি লঙ্ঘন করার অভিযোগে স্কুলটির সভাপতি, নিয়োগ বোর্ড ও সাবেক উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা তৌফিক আজিজসহ দুর্নীতির সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ দায়ের করেছেন শাজাহানপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি জাহিদুল হক আরজু।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার নগর শাহ মোজাম্মেল হক উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক পদে আবদুলস্না আল মোনায়েমকে ২০১৬ সালে নিয়োগ দেওয়া হয়। নিয়োগের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে অভিযোগ দায়ের করেন স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সভাপতি মাসুদুর রহমান। এরপর শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে তাকে নিয়োগের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সহ শুনানিতে অংশগ্রহণ করার জন্য ডাকা হলে তা দাখিলে ব্যর্থ হন এবং শুনানিতে অংশ না নেওয়ায় বিষয়টি তদন্তপূর্বক তার এমপিও সেই সময়েই বাতিল করা হয়।

এদিকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রবিধান মোতাবেক জানা যায়, প্রধান শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে কমপক্ষে ৩ বছর পূর্ব অভিজ্ঞগতা বাধ্যতামূলক। সেক্ষেত্রে শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক ওই বিদ্যালয়ে তার নিয়োগ অবৈধ হলে আড়িয়া রহিমাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ে তিনি পূর্ব অভিজ্ঞতাহীন ও যোগ্যতাহীন হওয়ায় এই নিয়োগ অবৈধ। এসব জেনে শুনেও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা তৌফিক আজিজ ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতিকে হাত করে আড়িয়া রহিমাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ে ১৭ মে- ২০২১ তারিখে আবদুলস্নাহ আল মোনায়েমকে অবৈধভাবে প্রধান শিক্ষক পদে নিয়োগ দেন।

এসব বিষয়ে তৎকালীন শাজাহানপুর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ও নিয়োগ বোর্ডের সদস্য তৌফিক আজিজ বলেন, 'নিয়োগ আমি দেই না। তবে সব বুঝেই নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।'

বর্তমান উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মাহবুবুল হোসেন বলেন, প্রধান শিক্ষক পদে অভিজ্ঞতার বিষয়টি বিচারাধীন অবস্থায় আরেক বিদ্যালয়ে ওই পদেই নিয়োগ দেওয়া অবৈধ। তবে এসব বিষয় তদন্তনাধীন। তদন্ত শেষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে