ঘন ঘন লোডশেডিং বিপর্যস্ত চারঘাট

ঘন ঘন লোডশেডিং বিপর্যস্ত চারঘাট

রাজশাহীর চারঘাটে ঘন ঘন লোডশেডিংয়ের কারণে চরম ভোগান্তি পোহাচ্ছে স্থানীয় সাধারণ জনগণ। উপজেলার অধিকাংশ এলাকায় দিনে ও রাতে মিলে নিয়মিত ৮-৯ ঘণ্টা লোডশেডিং হচ্ছে। ফলে তীব্র গরমে জনজীবন অতিষ্ঠ হয়ে ওঠছে।

নিমপাড়া ইউনিয়নের নন্দনগাছির আতিকুর রহমান জানান, ঘন ঘন লোডশেডিংয়ের কারণে শিশুসন্তান নিয়ে অনেক কষ্ট করতে হচ্ছে। নিয়ম অনুযায়ী এক ঘণ্টার লোডশেডিংয়ের কথা থাকলেও দিনে ও রাতে মিলে প্রতি ঘণ্টা পর এক থেকে দেড় ঘণ্টা পর্যন্ত লোডশেডিং হচ্ছে।

সারদা বাজারের কাপড় ব্যবসায়ী আওয়াল জানান, বিদু্যৎ সাশ্রয়ের সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী রাত ৮টার সময় তারা দোকান বন্ধ করেন। কিন্তু সারারাত কয়েক দফা বিদু্যৎ না থাকার ফলে সারারাত ঘুমাতে পারেন না।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সের পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আশিকুর রহমান জানান, অন্যান্য এলাকার মতো স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে লোডশেডিংয়ের কারণে বিদু্যৎ সরবরাহ মাঝেমধ্যে বন্ধ থাকে। হাসপাতালে নিরবচ্ছিন্ন বিদু্যৎ সরবরাহের জন্য একাধিকবার উপর মহলকে জানিয়েছেন।

নাটোর পলস্নী বিদু্যৎ সমিতি-২ এর চারঘাট জোনাল অফিসের ডিজিএম প্রকৌশলী রঞ্জন কুমার সরকার জানান, চারঘাট জোনাল অফিসের আওতায় বর্তমানে গ্রাহক সংখ্যা প্রায় ৬৭ হাজার। বিশাল গ্রাহকের বিপরীতে বিদু্যতের নিয়মতি দৈনিক চাহিদা সকাল ৬টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত ১০ মেগাওয়াট, বিকাল ৫টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত ১৫ মেগাওয়াট এবং রাত ১১টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত ১৪ মেগাওয়াট। কিন্তু পিক ও অফপিক আওয়ারে বিদু্যৎ প্রাপ্তির সংখ্যা চাহিদার তুলনায় প্রায় অর্ধেকের নিচে। তাই সে হিসেবে লোডশেডিং দেওয়া হচ্ছে। বিদু্যৎ চাহিদার তুলনায় না থাকলেও জনগণ এবং গ্রাহকদের বিদু্যৎসেবা নিশ্চিত করতে সর্বদাই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে