মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
walton

হাত পা বেধে দুই জেলেকে পিটালেন ট্রলার মাঝি,আটক ৩

কুয়াকাটা(পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
  ০৫ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৭:৪০

পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সৈকতে নোঙ্গর করা এক ট্রলারে হাত-পা বেধে শারিরিক নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে একই ট্রলারের মাঝির বিরুদ্ধে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জরুরি সেবা ৯৯৯ এ কল করলে পুলিশ তাদের আটক করে। আহত জেলেদের উদ্ধার করে কুয়াকাটা ২০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এরা সবাই চট্টগ্রামের বাঁশখালী এলাকার জেলে।

মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) বেলা ১২ টার দিকে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে একটি ট্রলারে হাত- পা বেধে মারধরের দৃশ্য পর্যটকদের চোখে পরলে, তাৎক্ষণিক এক পর্যটক জরুরি সেবা ৯৯৯ এ কল করলে নৌ পুলিশ আহত অবস্থায় মারধরের শিকার জেলে আকাশ ও কামাল কে উদ্ধার করে। এবং একই সঙ্গে নির্যাতনকারী মাঝি তপন সহ ৩ জনকে আটক করে পুলিশ।

সৈকতে থাকা প্রত্যক্ষদর্শী সুমন সিকদার বলেন, আমরা সৈকতে গোসল করতে ছিলাম তখন নোঙ্গর করা একটি ট্রলার থেকে ডাক চিৎকারের শব্দ শুনতে পাই। কাছাকাছি গিয়ে মারধর করতে না করলেও তারা শুনছিলো না। পুলিশে খবর দিবো বল্লে তারা ট্রলার চালিয়ে সাগরের মধ্যে চলে যায়। তখন ৯৯৯ এ কল দেই। পুলিশ এসে স্পিড বোট নিয়ে তাদের সাগর থেকে আটক করে।

আহত জেলে আকাশ বলেন, গত দুই মাস ধরে এই ট্রলারে আমি আর কামাল কাজ করছি কিন্তু এখন পর্যন্ত আমাদের কোন টাকা পয়সা দিচ্ছে না। তাই কুয়াকাটা সৈকতে ট্রলার নোঙ্গর করলে আমরা দুজন নেমে যেতে চাই। তখন তপন মাঝি সহ অন্য জেলেরা জালের রশি দিয়ে বেঁধে আমাদের দুজনকে বেধড়ক নির্যাতন করে। রশি দিয়ে সারা শরীরে পিটিয়েছে। আটককৃত তপন মাঝি এ বিষয় কোন কথা বলতে রাজি হয়নি।

কুয়াকাটা নৌ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মোঃ দেলোয়ার হোসেন বলেন, ৯৯৯ থেকে কল আসলে সাথে সাথে আমাদের একটি টিম তাৎক্ষণিক স্পিডবোট নিয়ে সাগরের মধ্যে থেকে অভিযুক্ত ওই ট্রলারকে আটক করতে সক্ষম হই।এবং বর্তমানে আহত দুই জেলেকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে এবং অভিযুক্ত মাঝি সহ ৩ জনকে আটক করা হয়েছে। পরবর্তী আইনানুক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

যাযাদি/এসএস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে