আমি ঘন ঘন প্রেমে পড়ি, কিন্তু ভুল মানুষের: তসলিমা নাসরিন

আমি ঘন ঘন প্রেমে পড়ি, কিন্তু ভুল মানুষের: তসলিমা নাসরিন

বাংলাদেশ থেকে নির্বাসিত হয়ে ভারতে থাকা লেখিকা তসলিমা নাসরিনের জন্মদিন আজ। ৬১ বছরে পা দিলেন এ বিতর্কিত লেখিকা। জন্মদিন উপলক্ষে তার সাক্ষাৎকার নিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার। সেখানে ব্যক্তিগত নানা প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন তসলিমা।

আনন্দবাজারের পক্ষ থেকে তসলিমাকে প্রশ্ন করা হয়, শেষ কবে প্রেমে পড়েছেন? এর উত্তরে তিনি বলেন, ‘আমি তো ঘন ঘন প্রেমে পড়ি। তবে ভুল মানুষের। কিছু দিন পর বুঝতে পারি নির্বাচন ভুল হয়েছে। আসলে ভালো লাগলে অনেক কিছু আবার প্রথম দিকে চোখেও পড়ে না। ধীরে ধীরে বুঝি। তাই বলে হৃদয়ের দরজা বন্ধ করি না।’

সংবাদমাধ্যমটির পক্ষ থেকে আরও প্রশ্ন করা হয়- ফেসবুকে লিখেছিলেন, ভালো স্তন না হলে খোলামেলা পোশাক পরা অনুচিত। আপনার এই মন্তব্যে তো অনেকেই অপমানিত বোধ করেছিলেন...।

এ প্রশ্নের তসলিমা বলেন, ‘এটা আমার মনে হয়েছে। অনেকেই হয়তো এমনটাই ভাবেন। কিন্তু বলেন না। আমি বলেছি। কিন্তু এটা একেবারেই ‘‘বডি শেমিং’’ নয়। শুধুমাত্র আমার মত। আমি রূপ আর সৌন্দর্যের চেয়ে মস্তিষ্ককে সারাজীবন বেশি গুরুত্ব দিয়ে এসেছি।’

সাজগোজের ব্যাপারে জানতে চাইলে তসলিমা নাসরিন বলেন,‘আমি খুব বেশি সাজগোজ করি না। ঘরে যা পরে থাকি, সেটা পরেই বেরিয়ে যাই। তবে শাড়ি পরলে সে দিন হয়তো হালকা করে একটু কাজল লাগালাম। একটা টিপ পরলাম। আসল কথা হলো, আমি সাজগোজ করতে পারি না। কী করে সাজতে হয় তা-ও জানা নেই।’

রোগা হওয়ার পর আপনার পোশাকেও খানিকটা বদল এসেছে বলে মনে হচ্ছে- এমন প্রশ্নের জবাবে তসলিমা বলেন, ‘হ্যাঁ। এখন শাড়ি ছেড়ে জিনস্‌, শার্ট বেশি পরছি। আগের জামাকাপড় সব তুলে রেখে দিয়েছি। এখন আলমারিতে সব নতুন পোশাক জায়গা পেয়েছে। আগে শাড়ি দিয়ে মেদ ঢেকে রাখতে হতো। এখন তো সে সবের ঝামেলা নেই। জিনসে্‌র সঙ্গে শার্ট গুঁজেও পরতে পারছি। আগে যা পরতে পারিনি, এখন সব ইচ্ছেমতো পরে নিচ্ছি।’

জন্মদিনে পরিকল্পনা সম্পর্কে তসলিমা নাসরিন বলেন, ‘জন্মদিন নিয়ে এখন আর আগে থেকে কিছু ভাবি না। একটা সময় একুশ পদ রান্না করতাম। সবাই আসত। আপ্যায়ন করতাম। এবার আমি ভেবেছি, কিছুই করব না। কাউকে নিমন্ত্রণও করিনি। কলকাতা থেকে কয়েক জন বন্ধুর আসার কথা। তাদের নিয়ে হয়তো রাতে রেস্তরাঁয় খেতে যাব।’

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে