রোববার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১

শনিবারের জাপার সভা স্থগিত, বিতরণ করবে পানি ও স্যালাইন

যাযাদি ডেস্ক
  ২৬ এপ্রিল ২০২৪, ২০:০৮
শনিবারের জাপার সভা স্থগিত, বিতরণ করবে পানি ও স্যালাইন

পূর্বনির্ধারিত শনিবারের পরিচিত ও সাংগঠনিক পর্যালোচনা সভা স্থগিত করেছে জাতীয় পার্টি। শনিবার (২৭ এপ্রিল) রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনিস্টিউট অব ডিপ্লোমা মিলনায়তনে ওই সভা আহবান করা হয়েছিল।

শুক্রবার সকালে বিজয়নগরের একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে পরিচিতি সভা ও নগরজুড়ে পানি ও খাবার স্যালাইন বিতরণের নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করে জাতীয় পার্টি।

এতে পার্টির নির্বাহী চেয়ারম্যান কাজী ফিরোজ রশিদ বলেন, তীব্র তাপদাহে জনগণের পাশে না দাঁড়িয়ে রাজনৈতিক সভাসমাবেশ করা তামাশার সামিল। তাই শনিবারের পরিচিত সভা স্থগিত করে শুক্রবার থেকে পাঁচ দিনব্যাপী ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণে ১০টি স্থানে তীব্র গরমে অতিষ্ঠ জনসাধারণের মাঝে পানি ও খাবার স্যালাইন বিতরণ করা হবে।

ফিরোজ রশিদ বলেন, অর্থনৈতিক ও ব্যাংক খাতে বিপর্যয় নেমে এসেছে। বড় বড় ব্যাংকগুলো ছোট ছোট ব্যাংক গিলে খাচ্ছে। বড় বড় কোম্পানিগুলোতে অভ্যন্তরীণ কোন্দল লাগিয়ে, তা গিলে খাওয়া হচ্ছে। এসব বিষয়ে এখন আর সংসদে কথা হচ্ছে না। আগে জাতীয় পার্টিকে বলা হতো গৃহপালিত বিরোধী দল। আর এখন বলা হয় কৃতদাস। এ পার্টির ভবিষ্যৎ অন্ধকার। জাতীয় পার্টির ওপর মানুষের আস্থা নেই। তারপরও চেষ্টা করা হচ্ছে পার্টিকে যেনো গুছিয়ে রাখা যায়।

তিনি বলেন, আগামীতে দুটি মার্কা ছাড়া অন্য মার্কা খুজে পাওয়া যাবে না। আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, হাসানুল হক ইনু, রাশেদ খান মেননও নিজেদের মার্কা বাদ দিয়ে নৌকায় উঠেছেন। তারপরও অনেককে ডুবে যেতে হয়েছে। নির্বাচন এখন নির্বাচনে নেই, নেই প্রতিদ্বন্দ্বীতা। এখন একটি দলের মধ্যেই হয় নির্বাচন।

সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, হঠাৎ করে বড়লোক হওয়ার একমাত্র পথ রাজনীতি। জীবনে যাদের টিন ছিলো না, তারা আজ প্রাডো জিপ চালায়। রাতারাতি কোটি টাকার মালিক বনে যাচ্ছেন। রাজনীতি নিয়ে অপরাজনীতি চলছে। এভাবে রাজনীতি শুণ্য হলে দেশ ও রাজনীতি ব্যবসায়ীদের হাতে চলে যাবে।

সংবাদ সম্মেলনে পার্টির মহাসচিব কাজী মামুনুর রশীদ বলেন, রাজনীতি করার অনেক সময় আছে। কিন্তু জনদূর্ভোগ ও মানুষে কষ্টের সময় রাজনীতি চলে না। জনগণের কল্যাণের জন্য রাজনীতি করি। তাই তাদের পাশে দাঁড়ানোই আমাদের প্রথম কাজ হওয়া উচিত। আমরা পাঁচ দিনব্যাপী প্রতিদিন রাজধানীর দশটি পয়েন্টে তীব্র রোধ ও গরমে অতিষ্ঠ ভ্রাম্যমাণ ও অসহায় রিক্সাচালক এবং দিনমজুরদের পানি ও খাবার স্যালাইন বিতরণ করবো। দেশজুড়ে পার্টির সকল জেলা উপজেলা নেতৃবৃন্দকেও একই কর্মসূচি নিয়ে জনগণের পাশে থাকার আহবান জানান জাতীয় পার্টির মহাসচিব কাজী মামুনূ রশীদ।

সংবাদ সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা, কো-চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম সেন্টু, সাহিদুর রহমান টেপা, গোলাম সারোয়ার মিলন ও সুনীল শুভ রায়। এতে আরো উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য শফিকুল ইসলাম শফিক, জাহাঙ্গীর আলম পাঠান, নুরুল ইসলাম নূরু, খন্দকার মনিরুজ্জামান টিটু, ভাইস চেয়ারম্যান মো. শারফুদ্দিন আহমেদ শিপু, শাহ জামাল রানা, যুগ্ম মহাসচিব ফকরুল আহসান শাহজাদা, শেখ মাসুক রহমান, এসএম হাসেম, সাংগঠনিক সম্পাদক জাফর ইকবাল নিরব, এমএম আমিনুল হক সেলিম, সম্পাদকমন্ডলীর সদস্য আবুল হাসান আহমেদ জুয়েল, শাহিন আরা সুলতানা রিমা, মো. জহির উদ্দিন, সায়িকা হক প্রমূখ।

সংবাদ সম্মেলন শেষে বিজয়নগর মোড়ে সড়কর চলাচলকারী পথচারি ও জনসাধারণের মাঝে ঠাণ্ডা পানি ও খাবার স্যালাইন বিতরণে জাতীয় পার্টি ঘোষিত পাঁচ দিনের কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়।

যাযাদি/ এসএম

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে