মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
walton

শাকিব-বুবলীর নতুন বাগ্‌যুদ্ধ 

বিনোদন রিপোর্ট
  ০৫ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৯:৪৯

ঢাকাই সিনেমার শীর্ষতারকা শাকিব খান। এই নায়কের সঙ্গে জুটি বেঁধে অভিনয় করে নায়িকাদের মধ্যে শীর্ষস্থান দখল করেন ঢালিউড কুইন খ্যাত চলচ্চিত্র অভিনেত্রী ও প্রযোজক অপু বিশ্বাস। এরপর একইভাবে টানা ব্যবসাসফল সিনেমা উপহার দিয়ে দেশীয় চলচ্চিত্রের চাহিদাসম্পন্ন নায়িকায় পরিণত হন শবনম ইয়াসিমন বুবলী। একসঙ্গে একাধিক সিনেমায় কাজ করতে করতে দ’জনের মধ্যেই প্রেমের সম্পর্কে জড়ান শাকিব খান। শুধু তাই নয়, সেই প্রণয় থেকে থেকে পরিণয় এবং সবশেষে প্রলয়।

আবারও তোলপাড় শুরু হয় চলচ্চিত্র ও দর্শক মহলে। তীব্র সমালোচনায় পড়েন শাকিব খান। এই নায়ক জানান, বুবলীকে আমি তালাক দিয়েছি। যদিও বুবলীর দাবি, তাদের ডিভোর্স কার্যকর হয়নি। অন্যদিকে চলতি বছরের শুরু থেকেই শাকিব খান মিডিয়াতে বলে আসছেন, অপু এবং বুবলী দুজনই এখন অতীত। এমনকি কোনো অনুষ্ঠানে শাকিব খানকে দাওয়াত করা হলে, শাকিবের প্রথম শর্ত থাকে সেখানে অপু কিংবা বুবলী থাকবেন কিনা? যদি তাদের কেউ একজন উপস্থিত না থাকেন, তাহলে অনুষ্ঠানে যাব, থাকলে যাব না।’

তবে শাকিবের কাছে অপু-বুবলী অতীত হলেও এই দুই নায়িকার মুখেই মাঝে-মধ্যেই শোনা যায় শাকিব বন্দনা। চলচ্চিত্রের আলোচিত এই তিন তারকা নানা সময়ে চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকেন। তবে শাকিবের চেয়ে অপু-বুবলীর মধ্যে কয়েকদিন পর পরই বেশি লড়াই দেখা যায়। যদিও সেটা সরাসরি নয়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম কিংবা গণমাধ্যমে।

সাবেক স্ত্রী ও চিত্রনায়িকা শবনম বুবলীকে নিয়ে আরও আবারও বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন শাকিব খান। শাকিবের সেই মন্তব্যের কড়া জবাবও দিয়েছেন বুবলী। কিছুদিন আগে গানবাংলা টেলিভিশন চ্যানেলের কর্ণধার কৌশিক হাসান তাপসের সঙ্গে শবনম বুবলীর প্রেমের বিষয়ে তাপসের স্ত্রী ফারজানা মুন্নীর ফোনালাপ অনলাইনে ছড়িয়ে পড়ে।

সেখানে বুবলীর বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ শোনা যায় ফারজানা মুন্নীর কণ্ঠে। তিনি দাবি করেন, বুবলী তার সংসার ভাঙার চেষ্টা করছেন। তাপসের সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছেন। গানবাংলার কর্ণধার কৌশিক হোসেন তাপস ও শবনম বুবলীর সম্পর্ক নিয়ে তখন ভারতে বারাণসিতে ‘দরদ’ এর শুটিং করছিলেন শাকিব খান। কাজের ব্যন্ততার কারণে তিনি এসব ঘটনা শুনলেও মুখ খোলেননি তিনি। দেশে এসে এবার সেসব নিয়েই গণমাধ্যমে কথা বলেছেন শাকিব।

বুবলীর ‘স্ক্যান্ডাল’ প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে শাকিব বলেন, ‘আমার জীবনে এই ভদ্রমহিলার কোনো অস্তিত্ব নেই। ব্যক্তিজীবনে অনেকের সঙ্গেই নাম জড়িয়েছিলেন বুবলী। মুন্নী ভাবির অডিও আমি শুনেছি। তিনি আমাকে যা বলেছেন, এটা আমি আশা করিনি। কারণ মুন্নি ভাবিকে আমি যতটা স্ট্রং পারসোনালিটির মানুষ হিসেবে দেখেছি, তার মতো মানুষকে এত অসহায়ভাবে দেখব সেটা আশা করিনি।’

শাকিবের দাবি, এর আগেও অনেকের সঙ্গে বুবলীর ‘স্ক্যান্ডাল’র বিষয়ে শুনেছেন। এমনকি কিছু ক্ষেত্রে দোষ নিজের কাঁধেও নিয়ে চুপ করে ছিলেন তিনি। এই নায়কের ভাষ্য, ‘তার (বুবলী) তো এর আগেও অনেক স্ক্যান্ডাল শুনেছি। এই স্ক্যান্ডালটা তো তাপসের স্ত্রী নিজে বললেন। সেটার অডিও আমরা সবাই শুনলাম। আমারটা আর না-ই বললাম।’

শাকিব উল্লেখ করেন, ‘দুইবার এমন ঘটনা আমি আমার ঘাড়ে নিয়েছি। আমার ওপর দিয়ে দোষ গেছে, আমি চুপ করে বসে ছিলাম। তাদের বিরুদ্ধে কখনো কিছু বলতে চাইনি। আজও বলছি না। কাউকে বলছি না যে, তাপসের বউ আমাকে কী বলেছেন। আমি আসলে বরাবরই মানুষ চিনতে ভুল করেছি। মানুষের বাহ্যিক আচরণ দেখে তাকে বোঝা মুশকিল। সিনেমাতে যেমন দেখা যায়, যাকে চিন্তাই করতে পারি না যে তিনি ক্রিমিনাল হতে পারে। পরে দেখা যায়, তিনি সবচাইতে বড় ক্রিমিনাল।’

শাকিবের এই মন্তব্যের পর বসে থাকেননি তার সাবেক স্ত্রী চিত্রনায়িকা শবনম বুবলী। সোমবার বেলা ১১ টা নাগাদ ফেসবুকে শাকিবের নাম উল্লেখ না করে তিনি লিখেছেন, ‘ভূতের মুখে রাম রাম (নাম)। অবশেষে নায়ক সাহেব বরাবরের মতোই ‘‘ভুয়া গুজব’’ সিনেমার প্রধান পরিচালক হিসেবে সামনে আসলেন। অবশ্য এ রকম পরিচালনা তার জন্য নতুন কিছু না। মজার ব্যাপার হচ্ছে নায়ক এবং তার গ্যাংয়ের সদস্যদের আমার নাম নিয়ে শুধু আলোচনায় থাকতে হয়। এদের রিজিকের ব্যবস্থা করছি ভেবে ভালো লাগে।’

প্রসঙ্গত. প্রায় এক দশকের বেশি সময় ধরে চিত্রনায়ক শাকিব খানের সঙ্গে সংসার পেতেছিলেন অপু বিশ্বাস। ২০১৮ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি এই সংসারের ইতি টানেন শাকিব। এরপর একই বছরের ২০ জুলাই আরেক ঢাকাই চিত্রনায়িকা শবনম বুবলীর সঙ্গে গোপরে সংসার শুরু করেন শাকিব। সেই সংসারেরও ইতি টেনেছেন ঢাকাই এই চিত্রনায়ক। শুরুতে অপু বিশ্বাসকে গোপনে বিয়ে করেন শাকিব খান। বিয়ের পর দীর্ঘদিন আড়ালে থাকেন অপু। শেষমেশ আড়াল ভেঙে সন্তান আব্রাম খান জয়কে নিয়ে প্রকাশ্যে গণমাধ্যমের সামনে এসে বিয়ে ও সন্তান জন্মদানের বিষয়ে খোলামেলা কথা বলেন এই নায়িকা। বিষয়টি নিয়ে শোবিজ ও শাকিব-অপু ভক্তদের মধ্যে এক ধরনের শোরগোল পড়ে যায়। পরবর্তীতে শাকিব খান মিডিয়াকে জানান, ‘জয় আমার সন্তান হলেও অপু আমার স্ত্রী নয়।’ ওই সময় সাংবাদিকদেও কাছে কান্নাকাটি করে নিজের অসহায়ত্বেও কথাও প্রকাশ করেন অপু। কিন্ত এতকিছুর পরেও স্ত্রী হিসেবে মর্যাদা না দিয়ে উল্টো অফু বিশ্বাসকে ডিভোর্স দেন অপু। বর্তমানে একমাত্র সন্তানকে নিয়ে একাই বসবাস করছেন এই নায়িকা।

অপু বিশ্বাসের পর একই কায়দায় চুপিসারে শবনম বুবলীকেও বিয়ে করেন শাকিব খান। বিয়ের পর অপুর মতোই চলচ্চিত্র থেকে উধাও হয়ে যান। গত সেপ্টেম্বরের শেষের দিকে নিখোঁজ হওয়া বুবলী হঠাৎ নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে সন্তানের ছবিসহ বিস্তারিত প্রকাশ করেন।

সেখানে তিনি লেখেন, ‘আমরা চেয়েছি একটি শুভ দিনক্ষণ দেখে আমাদের সন্তানকে সবার সম্মুখে আনতে। তবে আল্লাহ যা করেন, ভালোর জন্যই করেন, সেই সুখবরটি জানানোর জন্য আর বেশি দিন অপেক্ষা করতে হয়নি। শেহজাদ খান বীর, আমার এবং শাকিব খানের সন্তান, আমাদের ছোট্ট রাজপুত্র। আমার সন্তান আমার গর্ব, আমার শক্তি। আপনাদের সবার কাছে আমাদের সন্তানের জন্য ােয়া কামনা করছি।’

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে