শুক্রবার, ৩১ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

মার্কিন রণতরী ইরানের কাছাকাছি অবস্থান নিয়েছে

যাযাদি ডেস্ক
  ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ১৪:০৪
ছবি সংগৃহতি

ইরানি নেতাদের ভাষায় দখলদার ইসরাইলকে রক্ষায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র দিশেহারা হয়ে গেছে। তারা পাগলের মতো আচরণ করছে। মাধ্যপ্রাচ্যে অশান্তির জন্য ইসরাইলের মতো দায়ি যুক্তরাষ্ট্রও। তাই মধ্যপ্রাচের দেশগুরো উচিত হবে যুক্তরাষ্ট্রকে উচিত শিক্ষা দেয়া।

এদিকে ইরানি হামলার শঙ্কায় মধ্যপ্রাচ্যে যুক্তরাষ্ট্র তার রণতরীগুলোর অবস্থান নতুন করে নির্ধারণ করছে। ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে এ-সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে।

ইউএস সেন্টকম কমান্ডার জেনারেল মাইকেল এরিক কুরিলা শুক্রবার ইসরাইলে ছিলেন। তিনি ইসরাইলি জেনারেল স্টাফের সাথে আলোচনা করে মার্কিন প্রতিরক্ষা পদক্ষেপের সমন্বয় সাধন করেন বলেও পত্রিকায় উল্লেখ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে অনেক সামরিক কর্মকর্তা গোপনে ইসরাইল সফর করেন।

এদিকে গত ১ এপ্রিল দামেস্কে ইরানি কনস্যুলেটে ইসরাইল হামলা চালায়। এতে ইরানের দুই শীর্ষ কমান্ডারসহ অন্তত সাত কর্মকর্তা নিহত হয়। ইরান এই হামলার প্রতিশোধ গ্রহণের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

ইসরাইলি ভূখণ্ডে ইরানি সম্ভাব্য হামলার ব্যাপারে যুক্তরাষ্ট্র বেশ কয়েকবার সতর্কতা উচ্চারণ করেছে।

শুক্রবার ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্র তার দুটি ডেস্ট্রোয়ারের অবস্থান পুনঃনির্ধারণ করেছে। এর একটি মধ্যপ্রাচ্যের ভেতরে, অপরটি এই অঞ্চলের বাইরে। পরিচয় প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তার উদ্ধৃতি দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, এগুলোর একটি এইজিস ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা সিস্টেমে সজ্জিত।

যুক্তরাষ্ট্র আশঙ্কা করছে, ইসরাইলের ওপর ইরান হামলা চালালে আঞ্চলিক যুদ্ধ শুরু হয়ে যেতে পারে। আর এতে করে মধ্যপ্রাচ্যে সার্বিক পরিস্থিতির আরো অবনতি ঘটতে পারে।

এদিকে জানা গেছে, দামেস্কে ইরানি কনস্যুলেটে হামলার আগে যুক্তরাষ্ট্রকে অবহিত না করার জন্য দেশটির প্রতি হতাশ হয়েছে ওয়াশিংটন। ইরানি হামলার জবাব ইসরাইল কিভাবে দেবে, তা যুক্তরাষ্ট্রকে জানানোর জন্য ইসরাইলের ওপর চাপ দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন কর্মকর্তারা ওয়াল স্ট্রিট জার্নালকে বলেন, এই অঞ্চলে মার্কিন বাহিনীকে রক্ষার অংশ হিসেবে তা করা দরকার।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে