কারগারে নারীসঙ্গ: সিনিয়র জেল সুপার ও জেলার প্রত্যাহার

কারগারে নারীসঙ্গ: সিনিয়র জেল সুপার ও জেলার প্রত্যাহার

গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগারে নারীর সঙ্গে বন্দির সময় কাটানোর ঘটনায় সিনিয়র জেল সুপার রত্না রায় ও জেলার নুর মোহাম্মদ মৃধাকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

রোববার দুপুরে আইজি প্রিজন ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. মোমিনুর রহমান মামুন এ তথ্য জানান। এনিয়ে মোট ৫জনকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

মোমিনুর রহমান মামুন জানান, সাজাপ্রাপ্ত আসামি হলমার্ক কেলেঙ্কারির সাজাপ্রাপ্ত বন্দি তুষারের সঙ্গে কারাগারে নারীর সময় কাটানোর ঘটনায় আমরা সিনিয়র জেল সুপার, জেলাসহ মোট ৫ জনকে প্রত্যাহার করেছি। তাদের সদর দপ্তরে সংযুক্ত করা হয়েছে।

এ ঘটনায় ইতোমধ্যে ডেপুটি জেল সুপার মোহাম্মদ সাকলাইন, সার্জেন্ট আব্দুল বারী ও সহকারী প্রধান কারারক্ষী খলিলুর রহমানকেও প্রত্যাহার করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত ৬ জানুয়ারি গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগারের পার্ট-১ এ আটক হলমার্ক কেলেঙ্কারির হোতা মালিক তানভীরের ভায়রা কোম্পানির জিএম তুষারের সাথে এক নারীর সঙ্গে সময় কাটান।

ওই দিনের সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, দুপুর ১২টা ৫৫ মিনিটে দুই যুবকের সঙ্গে ওই নারী কারাগারের কর্মকর্তাদের কক্ষের দিকে যান। সেখানে ওই নারীকে ডেপুটি জেলার সাকলায়েন স্বাগত জানান।

ফুটেজে আরও দেখা যায়, ওই নারী কক্ষে ঢোকার পর সাকলায়েন বেরিয়ে যান। এরপর জেল সুপার রত্নার কক্ষের দিকে যান তুষার। পরে তুষার ও ওই নারী সাকলায়েনের কক্ষে ফেরেন। সেখানে প্রায় পৌনে এক ঘণ্টা ছিলেন তারা।

কাশিমপুর কারাগার সূত্রে জানা যায়, তুষার আহমদ তদন্ত কমিটিকে জানিয়েছেন, ওই নারী তার দ্বিতীয় স্ত্রী।

যাযাদি/ এমএস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে