শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০
walton

শাহমিরপুর বিয়ের দাবীতে পল্লী চিকিৎসের বাড়ীতে কলেজ ছাত্রী 

পাংশা (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি
  ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৪:৪২

দির্ঘ ২ বছর ধরে প্রেমের সর্ম্পকের জের ধরে রবিবার সন্ধ্যা রাত থেকে এখন পর্যন্তু বিয়ের দাবীতে কলেজ পড়ুয়া এক শিক্ষার্থী অবস্থান করছেন রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার হাবাসপুর ইউনিয়নের শাহমিরপুর গ্রামের পল্লী চিকিৎসক মতিয়ার রহমানের বাড়ীতে। মতিয়ার রহমানের একমাত্র ছেলে সবুজের সাথে ওই কলেজ শিক্ষার্থী প্রেমের সর্ম্পকের জের ধরেই সে বাড়ীতে অবস্থান করছেন বলে জানান কলেজ ছাত্রী নিজেই।

সোমবার সরে জমিনে গিয়ে ওই কলেজ ছাত্রীর সাথে কথা হলে তিনি বলেন আমারা দির্ঘ ২ বছর ধরে প্রেমের সর্ম্পকে রয়েছি আমার সাথে তার একাধিক বার শারিরীক সর্ম্পকও হয়েছে সবুজের নিজ বাড়ীতেই। আমাকে সবুজ তাদের বাড়ীতে আসতে বলে সে তার মায়ের কথা মত পালিয়ে রয়েছে, আমি এ বাড়ীতে আসার পরও সে বাড়ীতেই ছিল। সবুজের সাথে আমাকে বিয়ে না দিলে আমি এখানেই আত্বহত্যা করে জীবন শেষ করে দিব এ ছাড়া আমার কোন পথ নেই। ওই কলেজ ছাত্রী একই এলাকার এক হত দরিদ্র পরিবারের মেয়ে।

স্থানীয়রা জানান- পল্লী চিকিৎসক মতিয়ারের ছেলে সবুজ এলাকায় নানা অপর্কমের সাথে জড়িত,কিছুদিন আগেও এক গৃহবধুর সাথে তার আপত্তি কর ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছিল,সেখান থেকে বেচে যাওয়ার পরপরই এ ঘটনা ঘটিয়েছে। সামাজিক ভাবে এ ঘটনার সুষ্ট বিচার কামনা করেছেন স্থানীয়রা। এ বিষয়ে সবুজের পিতা পল্লী চিকিৎসক মতিয়ার রহমান বলেন এটা আমার পরিবারের বিরুদ্ধে সড়যন্ত্র করা হচ্ছে।

এদিকে রবিবার সন্ধ্যা থেকেই স্থানীয় উৎসুখ জনতা ওই কলেজ ছাত্রীকে দেখতে ভীর জমাচ্ছে, এবং প্রেমিক পরুষ সবুজ এলাকা থেকে গা ঢাকা দিয়ে পালিয়ে রয়েছে।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে