রোববার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১
walton

পীরগঞ্জে দেড় মাস ধরে এম্বুলেন্স সেবা থেকে বঞ্চিত রোগীরা

পীরগঞ্জ (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি
  ২৭ মার্চ ২০২৩, ১৩:৩৪

প্রায় ৪ লাখ টাকা বকেয়া থাকায় ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রের সরকারী এ¤ু^লেন্সের জ¦ালানী তেল সরবরাহ বন্ধ করে দিয়েছে ফিলিং ষ্টেশন কর্তৃপক্ষ। জ¦ালানীর অভাবে প্রায় দেড় মাস ধরে রোগী সেবা বন্ধ রেখে হাসপাতালের গোডাউনে তালা বদ্ধ করে রাখা হয়েছে এম্বুলেন্সটি। এতে জরুরী প্রয়োজনে এস্বুলেন্স সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন রোগীরা। প্রাইভেট ও লক্কর ঝক্কর এম্বুলেন্সে করে প্রায় দ্বিগুন ভাড়া দিয়ে রোগীদের উন্নত চিকিৎসার জন্য উপজেলার বাইরে নিয়ে যেতে বাধ্য হচ্ছে স্বজনরা। তবে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছেন, উদ্ধতন কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ চলছে। খুব শীঘ্রই বরাদ্দ পাওয়া যাবে।

জানা যায়, ৫০ শয্যা বিশিষ্ট পীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রের জরুরী রোগীদের দ্রুত এবং স্বল্প খরচে পরিবহন সুবিধা দিতে দু’বছর আগে হাসপাতালে সরকারি ভাবে একটি নতুন এম্বুলেন্স প্রদান করা হয়। তখন থেকে এটি ঠিক ঠাক চললেও সম্প্রতি জ¦ালানীর বরাদ্দ নিয়ে জটিলতা সৃষ্টি হয়েছে। এম্বুলেন্সটির জ¦ালানীর জন্য গত জুলাই থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত সরকার ৫ লাখ ২০ হাজার টাকা ভৃর্তকি প্রদান করেন কর্তৃপক্ষ।

কিন্ত গত জানুয়ারী পর্যন্ত শহরের আলম ফিলিং ষ্টেশন হতে এম্বুলেন্সটির জন্য প্রায় ৯ লাখ টাকার জ¦ালানী তেল উত্তোলন করা হয়। বকেয়া পড়ে প্রায় ৪ লাখ টাকা। এ টাকা দিতে না পারায় ফেব্রুয়ারী মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে তেল সরবরাহ বন্ধ করে দেন আলম ফিলিং ষ্টেশন কর্তৃপক্ষ। এতে বন্ধ হয়ে যায় এম্বুলেন্স সেবা। সুত্র জানায়, জ¦ালানি খাতে ভুর্তকি বরাদ্দের চেয়ে বেশি টাকা খরচ করায় এ সমস্যা হয়েছে। এম্বুলেন্স সেবা বন্ধ থাকায় দিনাজপুর ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য রেফার্ড করা রোগীদের প্রাাইভেট ও লক্কর ঝক্কর এ্যাম্বুলেন্সে করে সরকারি ভাড়ার দ্বিগুন ভাড়া দিয়ে নিয়ে যেতে হচ্ছে স্বজনদের। সরকারী এম্বলেন্স না থাকায় প্রাইভেট এ¤ু^লেন্স মালিকরা এর সুযোগ নিচ্ছেন। ভাড়া আদায় করছেন ইচ্ছামত।

আসাদুজ্জামান নামে এক রোগীর স্বজন জানান, অসুস্থতার জন্য তার মাতাকে জরুরী ভাবে রংপুরে নেয়ার জন্য তিনি হাসপাতালের সরকারি এম্বুলেন্স পাননি। অনেক বেশি টাকা ভাড়া দিয়ে বিকল্প ভাবে তার মা’ক রংপুরে নিতে হয়েছে।

এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রের কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুল জব্বার জানান, তেলের দাম বেড়ে যাওয়ায় জ্বালানি খরচ বেশি হয়েছে। বিষয়টি তিনি হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি ঠাকুরগাও-৩ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য হাফিজউদ্দীন আহমেদকে জানিয়েছেন। তাছাড়া এম্বলেন্সের জ¦ালানীর অর্থের জন্য কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ চলছে। খুব শ্রীঘ্রই পাওয়া যাবে বলে আশা করেন তিনি।

হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি ঠাকুরগাও-৩ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য হাফিজউদ্দীন আহমেদ বলেন, সমস্যার কথা তিনি শুনেছেন। সমাধানের জন্য কি করতে হবে এর জন্য তিনি স্বাস্থ্য কর্মকর্তাকে তার সাথে যোগাযোগ করার জন্য বলেছেন। কর্মকর্তা যোগাযোগ করলে তিনি এ বিষয়ে উদ্যোগ নিবেন বলে জানান।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে