আশ্রয়ণের ঘরে চাঁদাবাজি

সালথা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের স্বামী আটক

সালথা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের স্বামী আটক

ফরিদপুরের সালথা উপজেলায় এক ভিক্ষুককে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে চাঁদাবাজির অভিযোগে হায়দার মোল্যা (৫৫) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। আটক হায়দার মোল্যা সালথা উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রুপা বেগমের স্বামী।

অভিযোগ রয়েছে, আব্দুর রহমান নামের এক ভিক্ষুককে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে ২৫ হাজার ৫০০ টাকা নেন উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের স্বামী হায়দার মোল্যা। পরে সেই টাকা চাইতে গেলে ওই ভিক্ষুককে বিভিন্ন সময়ে হুমকি দিয়ে আসছেন হায়দার মোল্যা ও তার ভাই। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান রুপা বেগমও বিভিন্ন লোকজন দিয়ে হুমকি-ধামকি দিচ্ছেন বলেও অভিযোগ ভুক্তভোগী ভিক্ষুকের পরিবারের। পরে এ ঘটনায় সালথা থানায় গত সোমবার সন্ধ্যায় চাঁদাবাজি ও হুমকি-ধামকির অভিযোগ এনে একটি এজাহার করেন ভিক্ষুক আব্দুর রহমান। পরে ওই দিন রাতেই সালথা থানা এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রুপা বেগমের স্বামী হায়দার মোল্যা ও ভাই মোকাদ্দেস মাতুব্বরকে আসামি করা হয়। পরে এজাহার দায়েরের পরিপ্রেক্ষিতে হায়দার মোল্যাকে আটক করে পুলিশ।

ফরিদপুরের সালথা থানার ওসি মো. শেখ সাদিক এ ব্যাপারে জানান, উপজেলার কুমারপট্টি এলাকার আব্দুর রহমান নামের এক ভিক্ষুকের কাছে থেকে প্রধানমন্ত্রীর ঘর পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে টাকা নেওয়া ও তাকে হুমকি-ধমকি দেওয়ার অভিযোগে সালথা থানায় একটি এজাহার করেন ওই ভিক্ষুক। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পুলিশ কাজ করছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে