মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
walton

সেরা অভিনেতা শাহরুখ খান

যাযাদি ডেস্ক
  ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩, ১১:০৮
আপডেট  : ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৩:১৫

পাঁচ বছরের ব্যর্থতা কাটিয়ে চলতি বছর ফের নিজস্ব ছন্দে ফিরেছেন বলিউড তারকা শাকরুখ খান। ২০২৩ সাল জুড়ে আলোচনার শীর্ষে থাকা এই তারকা এবার বর্ষসেরা অভিনেতার তকমা পেলেন। সম্প্রতি আইএমডিবি রেটিংয়ে প্রকাশিত তালিকায় ভারতের সবচেয়ে জনপ্রিয় তারকা নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। এবার আইএমডিবির নতুন একটি তালিকায় তার সিনেমা শীর্ষস্থানে রয়েছে। ২০২৩ সালের শীর্ষ ১০টি জনপ্রিয় ভারতীয় চলচ্চিত্রের তালিকা প্রকাশ করেছে আইএমডিবি যা ২০২৩ সালের ১ জানুয়ারি থেকে ৬ নভেম্বরের মধ্যে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে। বছরের শেষ তালিকাটি বিশ্বব্যাপী সাইটটির ২০০ মিলিয়নেরও বেশি দর্শকদের আইএমডিবির সাইট পরিদর্শন ও অনুসন্ধানের উপর ভিত্তি করে নির্মিত হয়েছে।

তালিকায় দেখা গেছে এ বছর আইএমডিবিতে জয়জয়কার শাহরুখ খানের। তার অভিনীতি দুটি সিনেমাই শীর্ষ এবং দ্বিতীয় স্থান দখল করেছে। তালিকায় স্থান পেয়েছে বিজয়ের ‘লিও’ এবং রজনীকান্তের ‘জেলার। ‘জওয়ান’ ও ‘পাঠান’ : অ্যাটলি কুমার পরিচালিত ও শাহরুখ খান অভিনীত জওয়ান তালিকার শীর্ষে রয়েছে। সিনেমাটি বছরের অন্যতম ব্লকবাস্টার ও হিন্দি চলচ্চিত্রের সর্বাধিক আয় করা চলচ্চিত্র হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে। বিশ্বব্যাপী ১ হাজার ১০০ কোটির বেশি করেছে ‘জওয়ান’। তালিকায় দ্বিতীয় স্থানেও রয়েছেন বলিউড বাদশা। যশ রাজ ফিল্মসের ‘পাঠান’ বছরের অন্যতম হিট। সিনেমাটি শাহরুখ খানের প্রত্যাবর্তনের পাশাপাশি কিং খানকে বক্স অফিসে ইতিহাস গড়তে সাহায্য করেছে। বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে ১০০০ কোটির মাইলফলক অর্জন করেছে সিনেমাটি। ২০২৩ সালে আইএমডিবির শীর্ষ ১০টি জনপ্রিয় ভারতীয় চলচ্চিত্রের তালিকায় তৃতীয় স্থানে রয়েছে করণ জোহর পরিচালিত রণবীর সিং ও আলিয়া ভাটের ‘রকি অউর রানি কি প্রেম কাহানি’। সিনেমাটির মাধ্যমে দীর্ঘ ৭ বছর পর পরিচালনায় ফিরেছেন করণ জোহর। পারিবারিক ড্রামাটি বক্স অফিসেও পেয়েছে দারুণ সফলতা। ৩৫০ কোটির বেশি আয় করে নিয়েছে বিশ্বব্যাপী।

তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে বিজয়ের ‘লিও’। লোকেশ কানাগারাজ পরিচালিত সিনেমাটি বিশ্বব্যাপী ৬০০ কোটির বেশি আয় করে নিয়েছে। তালিকায় পঞ্চম স্থানে রয়েছে অক্ষয় কুমারের ‘ও মাই গড ২’। টিনএজ বয়সের তরুণদের স্পর্শকাতর বিষয়ে আলোকপাত করে নির্মিত সিনেমাটি প্রথম কিস্তির মতোই হিট হয়েছে। আয় করেছে ১০০ কোটির বেশি। জনপ্রিয় এই তালিকার ষষ্ঠ স্থানে রয়েছে রজনীকান্তের ‘জেলার’।

নেলসন দীলিপকুমার পরিচালিত সিনেমাটিতে রজনীকান্ত ছাড়া আরো ছিলেন শিবকুমার, মোহনলালের মতো তারকারা। বিশ্বব্যাপী ৬৫০ কোটির বেশি আয় করেছে সিনেমাটি। সপ্তম স্থানে রয়েছে সানি দেওলের প্রত্যাবর্তন চলচ্চিত্র ‘গাদার ২’। বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে দাঁপিয়ে বেড়িয়েছে সিনেমাটি। হিন্দি চলচ্চিত্রের সর্বোচ্চ আয়ের তালিকাতেও জায়গা করে নিয়েছে এটি। অষ্টম স্থানে রয়েছে বছরের সবচেয়ে আলোচিত-সমালোচিত চলচ্চিত্র ‘দ্য কেরালা স্টোরি’। সবাইকে চমকে দিয়ে বক্স অফিসে দুর্দান্ত আয় করে নিয়েছে সিনেমাটি। এছাড়াও ধর্মীয় ইস্যুতে তুমুল আলোচনায় ছিল। তালিকার নবম স্থানে রয়েছে রণবীর-শ্রদ্ধার ‘তু ঝুঠি ম্যায় মাক্কার’। রোমান্টিক সিনেমাটি দর্শকপ্রিয়তা পাওয়ার পাশাপাশি বক্স অফিসেও ছিল হিট। দশম স্থানে অজয় দেবগনের ‘ভোলা’। তামিল চলচ্চিত্র ‘কাইথি’র অফিসিয়াল রিমেক এটি। মূল ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অজয় দেবগন। সিনেমাটি পরিচালনাও করেছেন তিনি। বক্স অফিসেও বেশ সাড়া পেয়েছে ‘ভোলা’।

যাযাদি/এস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে