logo
মঙ্গলবার, ১৪ জুলাই ২০২০, ৩০ আষাঢ় ১৪২৬

  ক্রীড়া ডেস্ক   ১৫ মে ২০২০, ০০:০০  

কোহলিকে নড়বড়ে করতে আকরামের মন্ত্র

কোহলিকে নড়বড়ে করতে আকরামের মন্ত্র
সময়ের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান তো বটেই, সবচেয়ে ফিট খেলোয়াড়দেরও একজন বিরাট কোহলি। ক্রিকেটের প্রতি তার নিবেদন ও ব্যাটিং কৌশল সমীহ জাগানিয়া। সব মিলে বোলারদের জন্য ভারতীয় অধিনায়ক যেন এক দুঃস্বপ্ন। ২২ গজে তার মনোবল নাড়িয়ে দেওয়ার একটা উপায় অবশ্য বাতলে দিয়েছেন ওয়াসিম আকরাম। জানিয়েছেন, কোহলির বিপক্ষে এখন বল করলে খুব স্স্নেজিং করতেন তিনি।

ভারতের সাবেক ক্রিকেটার ও ধারাভাষ্যকার আকাশ চোপড়ার ইউটিউব চ্যানেলে সম্প্রতি এক আলাপচারিতায় ক্রিকেটের নানা দিক নিয়ে কথা বলেন আকরাম। সেখানেই উঠে আসে কোহলি প্রসঙ্গ। কোহলির বিপক্ষে বোলিং করার বিষয়ে আকরাম বলেস, 'কৌশলের দিক দিয়ে, বিরাট কোহলি আজকের বোলারদের জন্য দুঃস্বপ্ন। তার ফিটনেস অনেক ওপরে এবং ভবিষ্যতে সে অনেক রেকর্ড ভাঙবে।'

আলোচনার এক পর্যায়ে ভারতের কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান শচিন টেন্ডুলকারের সঙ্গে কোহলির তুলনা ওঠে। তারা দু'জনই আগ্রাসী ব্যাটসম্যান; তবে মানসিকতার পার্থক্য তুলে ধরেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ও কিংবদন্তি বোলার, 'কোহলি হলো আধুনিক ক্রিকেটের সেরা। তবে শচিনের সঙ্গে তুলনা করলে, তারা পুরোপুরি ভিন্ন ক্রিকেটার। দু'জনেই আগ্রাসী, তবে ভিন্ন প্রকৃতির। বোলারদের অবশ্যই ব্যাটসম্যানদের শরীরের ভাষা বুঝতে হবে। আমি যদি টেন্ডুলকারকে স্স্নেজিং করতাম, তাহলে সে আরও দৃঢ়প্রতিজ্ঞ হয়ে উঠত। কারণ সে আগ্রাসী ছিল, তবে শান্ত প্রকৃতির।'

৮৬ টেস্টে সাত হাজার ২৪০ রান করা কোহলি ২৪৮ ওয়ানডেতে করেছেন ১১ হাজার ৮৬৭ রান। ৮২ টি২০তে রান দুই হাজার ৭৯৪। তিন সংস্ককরণেই তার ব্যাটিং গড় ৫০-এর উপরে। কোহলির বিপক্ষে বল করা নিয়ে আকরাম আরও যোগ করেন, 'অন্যদিকে, আমি যদি একই কাজ কোহলির সঙ্গে করি, সে হয়তো রেগে যাবে এবং আমাকে আক্রমণের চেষ্টা করবে। আর এটাই আমাকে তার উইকেট পাওয়ার ভালো সুযোগ করে দেবে।'

এদিকে বর্তমান সময়ে বোলাররা যেন কেমন হয়ে গেছেন। যে কারণে তারা ব্যাটসম্যানদের ভাবাতে পারছেন না। এমনটাই মনে হয়েছে সাবেক পাকিস্তানি অধিনায়ক ও সুইং বোলার ওয়াসিম আকরামের। ভারতীয় সাবেক ক্রিকেটার ও ধারাভাষ্যকার আকাশ চোপড়ার সঙ্গে তার ইউটিউব চ্যানেলে এক আলাপচারিতায় বর্তমান সময়ের ফাস্ট বোলিংয়ের নানা দিক নিয়ে কথা বলতে গিয়ে সাবেক এ পাকিস্তানি এমনটাই জানিয়েছেন।

ওয়াসিম বলেন, 'আজকাল অনেক ফাস্ট বোলারকে দেখি, সারাদিন দৌড়াচ্ছে, একই রান-আপ নিয়ে বল করছে, একই পেস, কোনো বৈচিত্র্য নেই। কোনো ব্যাটসম্যানকে যা ভাবাবে না। পরের বলে কী আসছে, এ নিয়ে সব সময় ব্যাটসম্যানকে ভাবনার মধ্যে রাখতে হবে একজন বোলারের। ছোটখাটো অনেক কিছু একজন বোলার করতে পারে, যা ব্যাটসম্যানকে সমস্যায় ফেলতে পারে।'

ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে নিজে কিভাবে শিখেছেন, তা উদাহরণ হিসেবে তুলে ধরেছেন ওয়াসিম, 'আমার ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে খুব কম বাঁহাতি বোলারকেই দেখতাম রাউন্ড দ্য উইকেটে বল করতে। তরুণ বোলার হিসেবে আমি ভাবতাম, যদি আমি এদিক দিয়ে বল করি তাহলে ভিন্ন একটা অ্যাঙ্গেল তৈরি হবে, যা ব্যাটসম্যানের জন্য কঠিন হবে।'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে