স্বাধীনতা কাপ দিয়ে ফুটবলের নতুন মৌসুম শুরু

স্বাধীনতা কাপ দিয়ে ফুটবলের নতুন মৌসুম শুরু

স্বাধীনতা কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট দিয়ে আজ (শনিবার) থেকে শুরু হচ্ছে ফুটবলের নতুন মৌসুম ২০২১-২২। ১৫টি দল ৪টি গ্রম্নপে বিভক্ত হয়ে অংশ নিচ্ছে এবারের আসরে। প্রতি বছর ফেডারেশন কাপ দিয়ে মৌসুম শুরু হলেও এবার জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী মুজিববর্ষ এবং স্বাধীনতার ৫০ বছর উপলক্ষে মৌসুমের শুরুতেই আয়োজন করা হচ্ছে স্বাধীনতা কাপ।

কমলাপুর শহীদ সিপাহি মোহম্মদ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে আজ বিকাল ৪টায় উত্তর বারিধারা ক্লাব খেলবে গত আসরের রানার্স আপ শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের বিপক্ষে। একই দিনে দ্বিতীয় ম্যাচে সন্ধ্যা ৬টায় শেখ জামাল খেলবে বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর বিপক্ষে।

এবার একটু বড় পরিসরে স্বাধীনতা কাপ আয়োজনের ইচ্ছা ছিল বাফুফের। প্রিমিয়ার লিগের ১২ দল সরাসরি এবং বাছাই করে আরও চারটি দল যোগ করে ১৬ দল নিয়ে টুর্নামেন্ট আয়োজনের পরিকল্পনা ছিল বাফুফের; কিন্তু ছাত্রদের পরীক্ষার কারণে শেষ পর্যন্ত বিকেএসপি খেলতে অপারগতা প্রকাশ করায় ১৫ দল নিয়েই হচ্ছে টুর্নামেন্টটি। অংশ নেওয়া দলগুলো হচ্ছে- বসুন্ধরা কিংস, শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব, ঢাকা আবাহনী, মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব, শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্র, সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব, চট্টগ্রাম আবাহনী, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়াচক্র, বাংলাদেশ পুলিশ এসসি, উত্তর বারিধারা ক্লাব, রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটি, (নবাগত) স্বাধীনতা ক্রীড়া সংঘ এবং তিন সার্ভিসেস দল বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, বাংলাদেশ নৌবাহিনী ও বাংলাদেশ বিমানবাহিনী। এবার চার গ্রম্নপের মধ্যে সব থেকে কঠিন গ্রম্নপে আছে বসুন্ধরা কিংস। তুলনামূলক সহজ গ্রম্নপে আছে তাদের অন্যতম প্রতিদ্বন্দ্বী ঢাকা আবাহনী। এবার ভিন্ন গ্রম্নপে থাকায় গ্রম্নপ পর্বে আবাহনী-মোহামেডানের দ্বৈরথ উপভোগ করার সুযোগ পাচ্ছেন না দেশের ফুটবল দর্শকরা। ফাইনাল ম্যাচ পর্যন্ত পৌঁছাতে ক্লাবগুলোকে কয়েকটি ধাপ পেরুতে হবে। গ্রম্নপের সেরা আট দল নিয়ে হবে কোয়ার্টার ফাইনাল। সেখান থেকে নির্বাচিত ৪ দল খেলবে সেমিফাইনাল। সবকিছু ঠিক থাকলে টুর্নামেন্টের ফাইনাল হবে ১৮ ডিসেম্বর।

স্বাধীনতার এক বছর পর (১৯৭২) থেকে শুরু হওয়া এই টুর্নামেন্ট ঘরোয়া ফুটবলে সব থেকে অনিয়মিত। এতো বছরে মাত্র দশটি আসর মাঠে গড়িয়েছে। এর মধ্যে সর্বোচ্চ তিনবার শিরোপা জেতার রেকর্ড আছে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের। অন্য কোনো ক্লাবই একটির বেশি শিরোপা জিততে পারেনি। শিরোপাজয়ী অন্য ক্লাবগুলো হচ্ছে : ঢাকা আবাহনী, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়াচক্র, ফরাশগঞ্জ, শেখ রাসেল, চট্টগ্রাম আবাহনী, আরামবাগ এবং সর্বশেষ আসরের শিরোপাজয়ী বসুন্ধরা কিংস। এ ছাড়া দুবার করে রানার্স আপ হয়েছে ঢাকা আবাহনীও শেখ রাসেল। একবার করে ফাইনাল খেলেও শিরোপা জেতা হয়নি ইস্ট ইন্ড ক্লাব, ব্রাদার্স ইউনিয়ন, শেখ জামাল, ফেনী সকার ও চট্টগ্রাম আবাহনীর। দীর্ঘ দুই মৌসুম পর মাঠে গড়াচ্ছে স্বাধীনতা কাপ। এর আগে ২০১৮ সালে সবশেষ হয়েছিল টুর্নামেন্টটি। যে আসরে শেখ রাসেলকে ২-১ গোলে হারিয়ে দিয়ে শিরোপা জিতে নিয়েছিল কিংসরা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

ক্যাম্পাস
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
হাট্টি মা টিম টিম
কৃষি ও সম্ভাবনা
রঙ বেরঙ

Copyright JaiJaiDin ©2022

Design and developed by Orangebd


উপরে